কলকাতা: এবার কন্টেনমেন্ট জোনের নিয়মের ক্ষেত্রে বদল আনার পরিকল্পনা করেছে রাজ্য সরকার। সাধারণ মানুষের আতঙ্ক কমাতেই এই রাস্তায় হাঁটতে চলেছে স্বাস্থ্য ভবন।

বলা হচ্ছে, আগে করোনা ধরা পড়লে যেমন পুরো পাড়া সিল করে কন্টেনমেন্ট জোন ঘোষণা করা হত। এখন ব্যাপারটা তেমন করা হবে না। নতুন যে পরিকল্পনা করা হয়েছে, তাতে যে ফ্ল্যাটের বাসিন্দা করোনা পজিটিভ হবেন, শুধুমাত্র সেই ফ্ল্যাটটিকে কন্টেনমেন্ট বলে ঘোষণা করা হবে।

যদি কোনও ফ্ল্যাটের একাধিক বাসিন্দা আক্রান্ত হন, সেক্ষেত্রে সেই বহুতলটিকে কন্টেনমেন্ট এলাকা বলে আখ্যায়িত করা হবে। যদি গ্রামাঞ্চলে কোনও বাড়ির কেউ করোনা আক্রান্ত হন, তবে পুরো পাড়া সিল না করে শুধু ওই বাড়ি ও তাঁর পাশের বাড়ি কন্টেনমেন্ট এলাকা ভুক্ত হবে।

অন্যদিকে মঙ্গলবারে বিগত দিনের সব রেকর্ড ভেঙে বাংলায় একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্ত ৩৯৬ জন৷ মঙ্গলনবার রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিনে প্রকাশ, সোমবার থেকে মঙ্গলবার সকাল ৯ টা পর্যন্ত নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৩৯৬ জন৷ এই নিয়ে রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৬১৬৮ জনে৷ এর মধ্যে সক্রিয় আক্রান্তের সংখ্যা ৩৪২৩ জন৷

আক্রান্ত ও মৃতের দিক থেকে কলকাতার অবস্থা খুবই উদ্বেগজনক৷ মঙ্গলবার কলকাতায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১১৬ জন৷ যা অন্যান্য জেলার তুলনায় সর্বোচ্চ৷ ফলে কলকাতায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ২২৯৫ জনে৷ গতকাল এই সংখ্যাটা ছিল ২১৭৯ জনে৷ সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৪৫ জন৷ এই নিয়ে কলকাতার ৯৭০ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন৷

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প