ফাইল ছবি

কলকাতা;  খুব দ্রুত শূন্যপদে শিক্ষক নিয়োগ করতে চলেছে এসএসসি। উচ্চ মাধ্যমিকে প্রায় ৬০০ শিক্ষক পদের জন্যে কাউন্সেলিং করাতে চলেছে স্কুল সার্ভিস কমিশন। আগামীকাল মঙ্গলবার এবং বুধবার কাউন্সিলিং হবে। আজ সোমবারই এই সংক্রান্ত শূন্যপদের বিস্তারিত তালিকা বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জারি করবে এসএসসি। এরপরেই দুদিন ধরে কাউন্সিলিং করাবে এসএসবি। পুজোর আগেই শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে বড়সড় সিদ্ধান্ত জানাতে পারে এসএসসি।

বাংলা এক সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাতকারে স্কুল সার্ভিস কমিশনের চেয়ারম্যান সৌমিত্র সরকার জানিয়েছেন, আমরা এক মাসের মধ্যে প্রথম এবং দ্বিতীয় কাউন্সেলিং করিয়ে দিয়েছিলাম। এটা এসএসসির ইতিহাসে একটা রেকর্ড। আমাদের সব কাজই যুদ্ধকালীন তৎপরতায় এগোচ্ছে। শুধু তাই নয়, খুব দ্রুত নবম এবং দশম শ্রেণীর কাউন্সেলিং করানো হবে বলে জানিয়েছেন এসএসসি চেয়ারম্যান। একই সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন, রাজ্যে প্রধান শিক্ষকদেরও কিছু শূন্যপদ রয়েছে। আগামী কাউন্সেলিং করে সেটাও শেষ করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

যদিও এখন সবচেয়ে বেশি আগ্রহ উচ্চ প্রাথমিকের প্যানেল প্রকাশ ঘিরে। কারণ, সেক্ষেত্রে প্রায় ১৫ হাজার শিক্ষক নিয়োগ হবে। সৌমিত্রবাবুর দাবি, পুজোর আগে অন্যান্য নিয়োগ প্রক্রিয়া এবং উচ্চ প্রাথমিকের প্যানেল প্রকাশের কাজ শেষ হয়ে যাবে। তারপর সরকারের নির্দেশ অনুযায়ী নতুন নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি দেওয়ার ব্যাপারে উদ্যোগ নেওয়া হবে। এমনটাই বাংলা ওই সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।