রাওয়ালপিন্ডি: দীর্ঘ এক দশক পরে পাকিস্তানের মাটিতে ফিরল টেস্ট ক্রিকেট৷ ২০০৯ সালে শ্রীলঙ্কার টিম বাসে জঙ্গি হামলার পর থেকে পাক ভূ-খণ্ডে টেস্ট ক্রিকেট তো দূরের কথা, সেই অর্থে প্রথম সারির কোনও দল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে পা দেয়নি৷ বাধ্য হয়েই নিরপেক্ষ মাঠে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে হতো পাকিস্তানকে৷ অবশেষে আক্ষরিক অর্থেই নিজ ভূমে পরবাসী তকমা ঘুচল পাকিস্তান ক্রিকেট দলের৷

ঘরের মাঠে পাকিস্তান শেষবার টেস্ট খেলেছিল শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে৷ এক দশক পর সেই শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধেই আবার নিজেদের ডেরায় টেস্ট খেলতে নামল পাক দল৷ রাওয়ালপিন্ডি ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিংহলিদের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টের প্রথম দিনে অবশ্য এগিয়ে রাখা গেল না পাকিস্তানকে৷ আবার শ্রীলঙ্কাও চালকের আসনে রয়েছে এমনটাও বলা যাবে না৷ অর্থাৎ প্রথম দিনের খেলা শেষ দু’দলই ম্যাচে কার্যত সেয়ানে-সেয়ানে লড়াই চালাচ্ছে৷

আরও পড়ুন: পোলার্ডের লড়াই ব্যর্থ করে টি-২০ সিরিজ জিতল ভারত

টস জিতে শ্রীলঙ্কা প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয়৷ শুরুটা দারুণ করলেও দ্বিতীয় সেশনে পর পর উইকেট হারিয়ে ম্যাচের রাশ হাতছাড়া করে তারা৷ মন্দ আলোয় দিনের খেলা নির্ধারিত সময়ের অনেক আগে শেষ হওয়া পর্যন্ত শ্রীলঙ্কা তাদের প্রথম ইনিংসে ৬৮.১ ওভারে ৫ উইকেটের বিনিময়ে ২০২ রান তুলেছে৷

ওপেনিং জুটিতে ৯৬ রান তোলে শ্রীলঙ্কা৷ দিনের প্রথম সেশনে কোনও উইকেট হারায়নি সিংহলিরা৷ দ্বিতীয় সেশনে ৪টি উইকেটের পতন হয় তাদের৷ ক্যাপ্টেন দিমুথ করুণারত্নে ৫৯ রান করে আউট হন৷ ওশাদা ফার্নান্ডো ৪০ রান করে সাজঘরে ফেরেন৷ কুশল মেন্ডিস ১০ ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউজ ৩১ রান করে ক্রিজ ছাড়েন৷ দীনেশ চাঁদিমল মাত্র ২ রান করে ফিরে যান৷ আপাতত ধনঞ্জয়া ডি’সিলভা ৩৮ ও নিরোশন ডিকওয়েলা ব্যক্তিগত ১১ রানে অপরাজিত রয়েছেন৷

আরও পড়ুন: ঝোড়ো ডাবল সেঞ্চুরি পৃথ্বীর

কেরিয়ারের দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে নামা টিন-এজার নাশীম শাহ ২টি উইকেট নিয়েছেন৷ অভিষেককারী উসমান শিনওয়ারি নিয়েছেন ১টি উইকেট৷ এছাড়া পাকিস্তানের হয়ে ১টি করে উইকেট নিয়েছেন শাহীন আফ্রিদি ও মহম্মদ আব্বাস৷

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।