ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: প্রাক্তন মেয়র ও সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া শোভন চট্টোপাধ্যায়ের জেড প্লাস ক্যাটাগরির নিরাপত্তা প্রত্যাহার করে নিয়েছে রাজ্য সরকার৷ তবে ইতিমধ্যেই বিজেপি নেতা শোভন চট্টোপাধ্যায়কে ওয়াই প্লাস ক্যাটাগরির কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।

জানা গিয়েছে, শুধু শোভন চট্টোপাধ্যায় নয়, বিজেপিতে যোগ দেওয়া বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ও কেন্দ্রীয় বাহিনীর নিরাপত্তা পাবেন। তাঁকে ওয়াই ক্যাটাগরির নিরাপত্তা দেওয়া হচ্ছে। খুব শীঘ্রই ওয়াই প্লাস ক্যাটাগরির নিরাপত্তা কর্মী মোতায়েন করা হবে শোভন চট্টোপাধ্যায়ের বাড়িতেও৷

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের পক্ষ থেকে ইতিমধ্যেই শোভন চট্টোপাধ্যায়ের বাড়ি পরিদর্শন করে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা৷ শোভনকে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা দেওয়া বিজেপির পক্ষ থেকে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকে আবেদন করা হয়। সেই আবেদন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক মঞ্জুর করলেই এই প্রস্তাবের বাস্তবায়ন ঘটবে৷

আরও পড়ুন : ৩৭০ ধারা প্রত্যাহার, সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টে প্রাক্তন সেনা অফিসার

উল্লেখ্য, বিজেপিতে যোগ দেওয়ার ২৪ ঘন্টার মধ্যেই কেন্দ্রীয় নিরাপত্তার জন্য আবেদন জানান শোভন চট্টোপাধ্যায়। এই মর্মে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে চিঠি দেন তিনি। প্রাক্তন মহানাগরিক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে জেড ক্যাটাগরির নিরাপত্তা চান বলে খবর মেলে৷

চিঠিতে শোভন জানান, ‘বিজেপিতে যোগ দেওয়ায় নিরাপত্তার অভাব বোধ করছেন তিনি। কলকাতায় ফিরলে তাঁর ওপর হামলার আশঙ্কা রয়েছে। তাই তাঁকে কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা দেওয়া হোক।’ উল্লেখ্য, মন্ত্রী হিসাবে রাজ্য সরকারের নিরাপত্তা পেতেন শোভন চট্টোপাধ্যায়। কিন্তু মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পর তাঁর নিরাপত্তা শিথিল হয়।

এদিকে, বিজেপি সূত্রের খবর, অমিত শাহ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হয়েই নেতাদের নিরাপত্তার খরচে কাটছাঁট করার ভাবনা-চিন্তা শুরু করে দিয়েছেন। ইতিমধ্যেই উত্তরপ্রদেশে মায়বতী এবং অখিলেশ যাদবের নিরাপত্তা কমিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। কেন্দ্রীয় সরকার বেছে-বেছে বিরোধী নেতা-নেত্রীদের নিরাপত্তাজনিত খরচে লাগাম টানছে, এই অভিযোগ যাতে কেউ তুলতে না পারে তার জন্য বিভিন্ন রাজ্যে নিজের দলের নেতাদেরও নিরাপত্তা কমিয়ে দেওয়ার পথে হাঁটতে চলেছেন অমিত।