স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: বাড়িতে মায়ের হাতে তৈরি মদ খেয়ে মৃত্যু হল এক ব্যক্তির। মৃতের নাম সুকুমার রুইদাস (৫০)। ঘটনাটি ঘটেছে, বাঁকুড়ার ইন্দাস থানা এলাকার জয়নগর গ্রামে।

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, সুকুমার রুইদাসের মা বাড়িতে মদ তৈরি করে বিক্রি করতেন। অন্যান্য দিনের মতো বৃহস্পতিবার রাতেও ঐ ব্যক্তি বাড়িতে তৈরি মদ খান। নিয়মিত মদ খাওয়ার পাশাপাশি মৃত সুকুমার রুইদাস মৃগী রোগেও আক্রান্ত ছিলেন। শুক্রবার বাড়িতেই তার মৃতদেহ দেখতে পাওয়া যায়। ঘটনার খবর পেয়ে ইন্দাস থানার পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বিষ্ণুপুর জেলা হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

মৃতের জামাই সত্য সাঁতরার দাবি, তাঁর শাশুড়ি বাড়িতে মদ তৈরি করেন। সেই মদ খেয়ে শ্বশুরমশাই তার দিদি ও ভাগনেকে প্রায়শই মারধোর পর্যন্ত করত। ঘটনার সময় বাড়িতে কেউ ছিল না, এদিন একদিকে প্রচুর পরিমাণে মদ খাওয়া ও অন্যদিকে মৃগী রোগে আক্রান্ত হয়েই তার জামাইবাবুর মৃত্যু হয়েছে বলে তিনি দাবি করেন।

মৃতের স্ত্রী সুধা রুইদাসও শাশুড়ির তৈরি মদ খেয়ে তার স্বামীর মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি করেন। ঘটনার সময় তিনি বাপের বাড়িতে ছিলেন না বলেই জানিয়েছেন। মদ খেয়ে স্বামীর মৃত্যু হয়েছে দাবি করলেও শাশুড়ির বিরুদ্ধে এখনও থানায় কোনও লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়নি। পুলিশের পক্ষ থেকে একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা করে ঘটনার তদন্ত চলছে বলে জানানো হয়েছে।