নয়াদিল্লি: কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি বুধবার ইন্সটাগ্রামে পোস্ট করলেন এক বীরঙ্গনার কথা। গৌরী প্রসাদ মহাদিক, যিনি শহিদ মেজর প্রসাদ গণেশের বিধবা স্ত্রী। তাঁর সম্পর্কে পোস্ট করে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করলেন স্মৃতি ইরানি।

২০১৭ সালে ভারত-চিন সীমান্তের কাছে একটি আগুনের দুর্ঘটনায় মারা গিয়েছিলেন মেজর প্রসাদ। তাঁর মৃত্যুর পর গৌরী প্রসাদ মহাদিক চাকরি ছেড়ে দেন ও আর্মিতে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন।

গৌরী প্রসাদ মহাদিক জানিয়েছেন, “আমি একজন যোগ্য আইনজীবী এবং সংস্থার সম্পাদক হিসেবে একটি চাকরিতে যুক্ত ছিলাম। কিন্তু স্বামীর মৃত্যুর পরে আমি ওই চাকরি ছেড়ে সশস্ত্র বাহিনীর জন্য প্রস্তুতি নিতে শুরু করি।” তিনি জানিয়েছেন স্বামীর প্রতি শ্রদ্ধায় তিনি সেনাবাহিনীতে যোগদানের জন্য দৃঢ় প্রতিজ্ঞ ছিল। তাঁর কথায়, ” আমি যে ইউনিফর্ম পড়ব তা আমার এবং আমার স্বামী হয়ে উঠবে।”

এই বছরের মার্চ মাসে, গৌরী প্রসাদ মহাদিক অফিসার্স ট্রেনিং একাডেমি থেকে স্নাতক হওয়ার পর লেফটেন্যান্ট হিসাবে ভারতীয় সেনাবাহিনীতে যোগদান করেছেন বলে জানা গিয়েছে।

স্মৃতি ইরানি ইন্সটাগ্রামে এটি পোস্ট করে গৌরীকে ভারতীয় মহিলাদের শক্তির উদাহরণ হিসাবে প্রশংসা করেন। তিনি তাঁর ইন্সটা ফলোয়ারদের জানিয়েছেন, যদি তাঁরা কখনও শ্রীমতি মহাদিককে দেখেন, তবে তাঁরা যেন তাঁর সেবা ও ত্যাগের জন্য তাঁকে কৃতজ্ঞতা জানান।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ