নয়াদিল্লি: কেন্দ্রীয় বিজেপি নেতৃত্ব বারবার দাবি করে আসছে যে, বাংলায় বিজেপি কর্মীরা আক্রান্ত হচ্ছে। গত দেড় বছরে এই রাজ্যে ৮০ জন বিজেপি কর্মীর মৃত্যু হয়েছে বলে উল্লেখ করেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। এবার আক্রান্ত বিজেপি প্রার্থীদের প্রতি সমবেদনা জানালেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি।

ভোটের ফলাফল প্রকাশের ঠিক আগের দিন বুধবার স্মৃতি ইরানি ট্যুইটারে লিখেছেন, কেরল ও পশ্চিমবঙ্গে যেসব বিজেপি কর্মীরা আক্রান্ত হয়েছে তাদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন তিনি। বলেছেন, যাদের মৃত্যু হয়েছে তাদের প্রতি সমবেদনা জানানোর কোনও ভাষা নেই। শুধু প্রত্যেক দিন দেশের জন্য কাজ করলে তবেই তাদের উপযুক্ত মর্যাদা দেওয়া হবে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

এদিন তিনি একগুচ্ছ ট্যুইট করেছেন। সেখানে বলেছেন, ‘হাতে আর মাত্র ২৪ ঘণ্টা আছে। গোটা দেশ যখন টিভি-র সঙ্গে সেঁটে বসে থাকবে, তখন যারা আমাদের আশীর্বাদ করেছে তাদের প্রত্যেককে ধন্যবাদ জানাতে চাই।’

যেসব কর্মী কোনও পদের আশা না করে শুধু দলের প্রতি ভালোবাসা থেকে কাজ করে গিয়েছেন, তাঁদের বিশেষ অভিনন্দন জানিয়েছেন স্মৃতি ইরানি।

স্মৃতির কথায়, এবারের নির্বাচন মানুষ বনাম বিরোধীদের। যারা ভারত ভাঙতে চায়, মানুষ তাদের বিরুদ্ধে লড়ছে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি। যারা দেশের ভবিষ্যতের প্রতি বিশ্বাস রেখেছেন তাদের ধন্যবাদ জানান তিনি।

গতবার কংগ্রেসের শক্ত ঘাঁটি আমেঠি থেকে লড়েছিলেন স্মৃতি ইরানি, কিন্তু হেরে যান। এবার তাই কোনও ফাঁক রাখেননি। দিনের পর দিন পড়ে থেকেছেন আমেঠিতে। আমেঠির দীর্ঘদিনের সাংসদ রাহুল গান্ধীকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছিলেন তিনি।

তবে রাহুলের হাত থেকে সত্যিই আমেঠি চলে যাবে কিনা, তা জানতে অপেক্ষা করতে হবে মাত্র কয়েক ঘণ্টা।