নয়াদিল্লি: ক্যালেন্ডারে চলতি মাসের পাতা ওল্টালেই আইপিএল ছেড়ে দেশে ফেরার সম্ভবনা স্মিথ-ওয়ার্নারের৷

৩০ মে থেকে ইংল্যান্ডের মাটিতে ক্রিকেট বিশ্বকাপের আসর৷ তার আগে দেশের মাটিতে প্রস্তুতি ক্যাম্প শুরু করবে অস্ট্রেলিয়া৷ জানা গিয়েছে, ২ মে থেকে ব্রিসবেনে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি শুরু করতে চলেছে অজিরা৷ সেক্ষেত্রে এপ্রিল শেষ হলেই দেশে ফিরে যেতে পারেন তাবড় দুই ব্যাটসম্যান৷

ফলে উনিশের আইপিএলের ফাইনাল স্টেজে ফ্র্যাঞ্চাইজির জার্সিতে স্মিথ-ওয়ার্নারকে না-পাওয়ার সম্ভবনা প্রবল৷ আইপিএলের নক-আউটে সম্ভবত নেই স্মিথ-ওয়ার্নার৷ উল্লেখ্য সোমবারই দীর্ঘ নির্বাসনের পর জাতীয় দলে সুযোগ পেয়েছেন দুই তারকা ব্যাটসম্যান৷

আরও পড়ুন-বিশ্বকাপে ১৫ জনের দল ঘোষণা করল ভারত

সোমবারই ইংল্যান্ডের মাটিতে বিশ্বকাপের জন্য দল ঘোষণা করেছে অজি বোর্ড৷ সেই দলে রয়েছেন স্মিথ-ওয়ার্নার৷ যদিও নেতা হিসেবে জাতীয় দলে প্রত্যাবর্তন করা হচ্ছে না স্মিথের৷ বিশ্বকাপের অ্যারন ফিঞ্চকে অধিনায়ক বেছে নিয়েছে অজি ক্রিকেট বোর্ড৷ সাম্প্রতিক সময়ে ফিঞ্চের নেতৃত্বে ভারত ও পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ওয়ান ডে সিরিজে জিতেছে অস্ট্রেলিয়া৷

উল্লেখ্য গত বছর দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে কেপটাউন টেস্টে বল বিকৃতি করে ক্রিকেট থেকে এক বছর নির্বাসিত হন স্মিথ-ওয়ার্নার৷ আইপিএল থেকেও বাদ পড়েন৷ দীর্ঘ এক বছর পর চলতি মরসুমে আইপিএলে ফিরে অবশ্য সানরাইজার্স জার্সিতে দারুণ ফর্মে রয়েছেন ওয়ার্নার৷ সাত ম্যাচ খেলে ইতিমধ্যে একটি শতরান ও ৪টি অর্ধশতরান হাঁকিয়েছেন ওয়ার্নার৷ সবমিলিয়ে দ্বাদশ আইপিএলে এখনও পর্যন্ত ৪০০ রান করেছেন অজি বাঁ-হাতি৷

আরও পড়ুন- অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ দল ঘোষণা: স্মিথ-ওয়ার্নারের প্রত্যাবর্তন, বাদ গেলেন দুই তারকা

অন্যদিকে ওয়ার্নারের মতো দাপট দেখাতে না পারলেও আইপিএলে ফিরে ব্যাট হাতে বড় রানের লক্ষ্য লড়াই চালাচ্ছেন স্টিভ স্মিথ৷ আইপিএলের নকআউট পর্বে, দলের নিয়মিত দুই ক্রিকেটারকে না পাওয়াটা অবশ্য ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলির কাছে বড় ধাক্কা বলা চলে৷