মুম্বই: নির্বাসন কাটিয়ে বাইশ গজে ফিরেছেন৷ কিন্তু এখনও বড় মঞ্চে প্রত্যাবর্তন হয়নি দুই অজি তারকা ক্রিকেটারের৷ আইপিএলের হাত ধরে বড় মঞ্চে ফিরতে চলেছেন স্টিভ স্মিথ ও ডেভিড ওয়ার্নার৷

বল বিকৃতির কারণে এক বছর নির্বাসন কাটিয়ে সদ্য বাইশ গজে ফিরেছেন স্মিথ ও ওয়ার্নার৷ গত বছর ঠিক আইপিএলের আগে বল বিকৃতির অভিযোগে ক্রিকেট থেকে নির্বাসিত হয়েছিলেন এই দুই অজি তারকা ব্যাটসম্যান৷ বিশ্বকাপের আগে আইপিএলই কামব্যাকের রাস্তা স্মিথ ও ওয়ার্নারের৷

গত মার্চে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে কেপ টাউন টেস্টে বল বিকৃতির জন্য নির্বাসন হয়েছিল তিন অজি ক্রিকেটার স্মিথ, ওয়ার্নার এবং ক্যামেরন ব্যানক্রফটের৷ স্মিথ ও ওয়ার্নার এক বছরের জন্য নির্বাসিত হলেও ৯ মাসের নির্বাসন হয়েছিল ব্যানক্রফটের৷ ২৩ মার্চ থেকে শুরু হওয়া আইপিএলের মঞ্চে স্মিথ-ওয়ার্নারদের দেখা গেলেও ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার দেওয়া নির্বাসন শেষ হচ্ছে ২৯ মার্চ৷ যে কারণে অস্ট্রেলিয়া-পাকিস্তান সিরিজ স্মিথ-ওয়ার্নারকে দলে রাখেননি অজি নির্বাচকরা৷

ফলে গত আইপিএল খেলাও হয়নি স্মিথ ও ওয়ার্নারের৷ কিন্তু নির্বাসন উঠে যাওয়ায় আইপিএলে নিজেদের দলে ঠাঁই হয়েছে দুই অজি ক্রিকেটারের৷ কিন্তু এবারের আইপিএলে রাজস্থান রয়্যালস তাঁদের ক্যাপ্টেনকে ধরে রেখেছে৷ ফলে শেন ওয়ার্নের মেন্টরশিপে রয়্যালস ব্লু জার্সিতে খেলতে দেখা যাবে স্মিথকে৷ ক্যাপ্টেন ওয়ার্নারকে ধরে রেখেছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদও৷

স্মিথ-ওয়ার্নারের আইপিএলে প্রত্যাবর্তন প্রসঙ্গে ওয়ার্ন বলেন, ‘স্মিথ ও ওয়ার্নার দারুণ ক্ষুধার্ত এবং ব্যাটে জবাব দেওয়ার ব্যাপারে দৃঢ় সংকল্প৷ যা ভাবছে স্মিথ-ওয়ার্নার পারফর্ম করতে পারবে না, তাদের ভুল প্রমাণিত করবে ওরা৷’ প্রাক্তন কিংবদন্তি অজি লেগ-স্পিনার আরও বলেন, ‘নির্বাসন কাটিয়ে ওরা প্রোপার কম্পিটিশনে নামছে৷ আইপিএল বিশ্বের সেরা টি-২০ লিগ৷ বিশ্বকাপে যাদের বিরুদ্ধে খেলবে তারাও আইপিএলে খেলছে৷ সুতরাং বিশ্বকাপের আগে আইপিএল হচ্ছে স্মিথ-ওয়ার্নারের প্রস্তুতির মঞ্চ৷

আইপিএল খেলতে আসার আগে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে স্মিথ বলেন, ‘ভারতে খেলতে আমি পছন্দ করি৷ আইপিএল দারুণ টুর্নামেন্ট৷ কনুই অবস্থা ভালো রয়ছে৷ গত দু’ সপ্তাহ ধরে ব্যাটিং প্র্যাকটিস করছি৷ সব ধরণের শট খেলতে পারছি৷’