মুম্বই: ইঙ্গিত মিলেছিল নির্বাচক প্রধানের কথায়৷ সেই জল্পনাটাই সত্যি প্রমাণতি হল৷ লোকেশ রাহুলের টেস্ট পারফম্যান্সে খুশি ছিলেন না জাতীয় নির্বাচকরা৷ তাঁর জায়গায় রোহিত শর্মাকে টেস্ট দলে ওপেনার হিসাবে ভাবা হচ্ছিল৷ শেষমেশ দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে টেস্ট সিরিজের দল থেকে বাদ পড়তে হল রাহুলকে৷

লোকেশের জায়গায় প্রথম বার টেস্ট দলে ঢুকে পড়লেন শুভমন গিল৷ ‘এ’ দলের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের চূড়ান্ত সফল গিল ভারতীয়-এ দল ছাড়াও ঘরোয়া ক্রিকেটে অত্যন্ত ধারাবাহিক৷ ক্যারিবিয়ান সফরের সিনিয়র দলে জায়না না-পাওয়ায় তরুণ টপ-অর্ডার ব্যাটসম্যান হতাশা ব্যক্ত করেছিলেন৷ অবশেষে তাঁর সামনে খুলে গেল টেস্ট দলের দরজা৷

আরও পড়ুন: প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে দাপুটে জয় ভারতের

ঘরোয়া ক্রিকেট ও ভারতীয়-এ দলের হয়ে ধারাবাহিক সফল হওয়া সত্ত্বেও টেস্ট দলে জায়গা হল না বাংলার তরুণ ওপেনার অভিমুন্যু ঈশ্বরণের৷ দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে গান্ধী-ম্যান্ডেলা ট্রফির জন্য ভারতীয় দলে জায়গা করে নেওয়ার জোরালো দাবিদার ছিলেন ঈশ্বরণও৷ টেস্ট ক্যাপ হাতে পাওয়ার জন্য আরও কিছুদিন অপেক্ষা করা ছাড়া অভিমন্যুর সামনে আপাতত কোনও উপায় নেই৷

ক’দিন আগেই জাতীয় নির্বাচকপ্রধান এমএসকে প্রসাদ জানিয়েছিলেন যে, লোকেশ রাহুলের টেস্ট ফর্ম চিন্তার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে৷ তাই রোহিত শর্মাকে টেস্ট দলে ওপেনার হিসাবে ভাবা হচ্ছে৷ দল ঘোষণা করার পরও সেই ভাবনাকেই সিলমোহর দেন প্রসাদ৷ তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন যে, তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজে মায়াঙ্কের সঙ্গে ইনিংসের গোড়াপত্তন করবেন রোহিতই৷

আরও পড়ুন: ফিটনেসের জন্য মাহিকে কৃতিত্ব দিলেন কোহলি

ভারতের টেস্ট স্কোয়াড: বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), মায়াঙ্ক আগরওয়াল, রোহিত শর্মা, চেতেশ্বর পূজারা, অজিঙ্কা রাহানে (সহঅধিনায়ক), হনুমা বিহারী, ঋষভ পন্ত (উইকেটকিপার), ঋদ্ধিমান সাহা (উইকেটকিপার), রবিচন্দ্রন অশ্বিন, রবীন্দ্র জাদেজা, কুলদীপ যাদব, মহম্মদ শামি, জসপ্রীত বুমরাহ, ইশান্ত শর্মা ও শুভমন গিল৷