নিউজ ডেস্ক, কলকাতা: শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়, তাঁরা বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন, এমনই গুঞ্জন বিগত বহুদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল৷ অবশেষে ১৪ অগস্ট, বুধবার দিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরে মুকুল রায়ের উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দেন তাঁরা৷ এ পর্যন্ত অনেকেই অঙ্ক মেলাতে পেরেছেন৷

তবে যেখানে হোঁচট খেয়েছেন অনেকে, তা হল দিল্লিতে বিজেপির দফতরে তৃণমূল বিধায়ক দেবশ্রী রায়ের উপস্থিতি৷ তাহলে কি তিনিও শোভন-বৈশাখীর মতো বিজেপির হাত শক্ত করবেন? এমন প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছিল৷ এবং অনেকে প্রায় নিশ্চিতও হয়ে গিয়েছিলেন টেলিভিশনের পর্দায় দেবশ্রীকে বিজেপির দফতরে দেখে৷ কিন্তু শেষ মুহূর্তেই যেন ছন্দপতন৷

বুধবার শোভন-বৈশাখীকে বিজেপিতে যোগ দিতে দেখা গেলেও শেষ মুহূর্তে কিন্তু এই যোগদান পর্বে দেখা যায়নি দেবশ্রী রায়কে৷ আর সেখান থেকেই উঠতে থাকে একের পর এক প্রশ্ন৷ তাহলে কী তিনি পরে যোগ দেবেন? নাকি রয়েছে অন্য কোনও সমীকরণ৷ এমনই প্রশ্ন যখন একের পর এক মাথাচাড়া দিয়ে উঠছে, তার মাঝেই চাঞ্চল্যকর খবর৷

জানা যায়, বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বকে নাকি শোভন চট্টোপাধ্যায় সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, দেবশ্রী রায় বিজেপিতে যোগ দিলে তিনি বিজেপিতে থাকবেন না৷ এদিকে মুকুল রায়ও সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে জানান, এই বিষয়ে তার কিছু জানা নেই৷ কেন দেবশ্রী রায় এসেছিলেন, কে তাঁকে ডেকেছেন, সে সম্পর্কে কোনও ধারণা নেই তাঁর৷ তিনি এও জানান, বিজেপিতে কারও যোগ দেওয়ার থাকলে সে বিষয়ে দল থেকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়৷

এদিকে দেবশ্রী রায়ের উপস্থিতি নিয়ে বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘আমরা বাজার তো অনেকে কিছুই করি, সব কী একদিনে রান্না করি’, এবং এই মন্তব্যের মধ্যে দিয়ে আগামিদিনে আরও অনেকে যে বিজেপিতে যোগ দিতে পারেন, সেই আভাস দিয়ে রাখলেন এই বিজেপি নেতা৷

তবে উল্লেখযোগ্য, রত্না চট্টোপাধ্যায়ের মন্তব্য৷ দিল্লিতে বিজেপির দফতরে দেবশ্রী রায়ের উপস্থিতিতে যথেষ্ট হতবাক তিনি৷ সংবাদ মাধ্যমের প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘দেবশ্রী রায়কে সেখানে দেখে তিনি শকড৷ কিন্তু দেবশ্রী রায় বিজেপিতে যোগ দেননি তা টিভির পর্দাতেই দেখা যাচ্ছে৷ সুতরাং অন্য কোনও কারণেও তিনি সেখানে গিয়ে থাকতে পারেন’, এমনটাই জানান রত্না চট্টোপাধ্যায়৷