বেঙ্গালুরু: এক চোটের ধাক্কা কাটিয়ে উঠতে না উঠতেই ফের চোটের কবলে শিখর ধাওয়ান। এমনিতেই রাজকোট ওয়ান-ডে’তে প্যাট কামিন্সের লাফিয়ে ওঠা বলে পাঁজরে আঘাত পেয়েছিলেন ‘গব্বর’। যে কারণে গতকাল অবধি তৃতীয় ম্যাচে তাঁর মাঠে নামা নিয়ে ছিল সংশয়। তবে সংশয় কাটিয়ে বেঙ্গালুরু ম্যাচে প্রথম একাদশে থাকলেও চিন্নাস্বামীতে ফের ফিল্ডিংয়ের সময় বাম কাঁধে চোট পেয়ে বসলেন ভারতীয় ওপেনার।

তৃতীয় ওয়ান-ডে’তে রবিবার সে সময় কভারে ফিল্ডিং করছিলেন ধাওয়ান। অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চের একটি ড্রাইভ বাঁ-দিকে ঝাঁপিয়ে রক্ষা করতে গিয়ে বিপদ ডেকে আনেন ভারতীয় ওপেনার। যন্ত্রণায় কাতরাতে কাতরাতে ফিজিও নিতিন প্যাটেলের সঙ্গে মাঠ ছাড়েন তিনি। তড়িঘড়ি হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে ধাওয়ানের বাঁ-কাঁধে এক্স-রে করা হয়। বিসিসিআই’য়ের তরফ থেকে টুইট মারফৎ জানানো হয়েছে সেই কথা। তবে বাকি ম্যাচের জন্য তাঁকে পাওয়া যাবে কীনা সময় বলবে।

উল্লেখ্য, গত ম্যাচে নিজেদের ব্যাটিং ইনিংসের দশম ওভারে পাঁজরে আঘাত লাগার পরেও ব্যাটিং চালিয়ে গিয়েছিলেন ধাওইয়ান। ৯৬ রানের মূল্যবান ইনিংস খেললেও পর ফিল্ডিং করতে আর নামেননি তিনি। একইসঙ্গে ফিল্ডিংয়ের সময় গত ম্যাচে চোট পেয়েছিলেন ডেপুটি রোহিত শর্মাও। গতকাল অবধি তৃতীয় ম্যাচে তাঁদের খেলা নিয়ে ছিল সংশয়। বোর্ডের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল, তাঁরা দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠছেন। তবে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে ম্যাচের ঠিক আগেই।

শেষ অবধি কোনওরকম বাধা না থাকায় দুই ওপেনারকে একাদশে রেখেই তৃতীয় ম্যাচে দল সাজানো হয়। কিন্তু ফের ধাওয়ানের চোটে চিন্তার ভাঁজ ভারতীয় শিবিরে। কাঁধে চোট লাগায় কনকাশন রিপ্লেসমেন্টের সম্ভাবনাও নেই এক্ষেত্রে। সেক্ষেত্রে অবস্থা বেগতিক হলে গত ম্যাচের সর্বোচ্চ রানস্কোরারকে ছাড়াই রান তাড়া করতে হতে পারে বিরাট অ্যান্ড কোম্পানিকে।

প্রশ্ন অনেক: দ্বিতীয় পর্ব