স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: দিদি, আপনার নিঃস্বার্থ মানবিক কাজে, একটি ভাই হয়ে হাত বাড়ানো আমার কর্তব্য। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে বাংলায় ঠিক এই কথাগুলোই টুইট করলেন বলিউডের বাদশা শাহরুখ খান।

করোনা মোকাবিলায় দেশের বিভিন্ন রাজ্যের পাশাপাশি বাংলার পাশেও দাঁড়িয়েছেন কিং খান। বাদশার এই পদক্ষেপের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে টুইট করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শনিবার মুখ্যমন্ত্রীর সেই টুইটের জবাব বাংলাতে দিলেন ‘ভাই’ শাহরুখ।

শাহরুখ যে শুধু বাংলাতেই টুইট করেছেন তা নয়, টুইটে লিখেছেন বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের লেখা কয়েকটি লাইন। লিখেছেন, ”আমি ঘুমিয়ে ছিলাম এবং স্বপ্ন দেখি যে, জীবন আনন্দময়। আমি জেগে উঠলাম আর দেখলাম সেই জীবনটা ছিল সেবার। আমি অভিনয় করেছি এবং দেখেছি, সেবাটা ছিল আনন্দের।”

নবান্ন সূত্রে খবর, মুখ্যমন্ত্রীকে ফোন করেও কথা বলেন শাহরুখ। তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে জানিয়েছেন, করোনা মোকাবিলায় রাজ্য সরকার যে আপতকালীন তহবিল তৈরি করেছে সেখানে আড়াই কোটি টাকা দান করবেন।

তবে শুধু পশ্চিমবঙ্গই নয়, দিল্লি মহারাষ্ট্রেও করোনা মোকাবিলায় এগিয়ে এসেছেন তিনি। প্রসঙ্গত, করোনা মোকাবিলায় রেড চিলিজ এন্টারটেইনমেন্ট, মীর ফাউন্ডেশন, কলকাতা নাইটরাইডার্স, রেড চিলিজ ভিএফএক্স, শাহরুখের ৪টি সংস্থা বিভিন্নভাবে কাজ করবে জানানো হয়েছে।

রেড চিলিজের পক্ষ থেকে বিবৃতি দিয়ে জানানো হয়েছে, শাহরুখের কোম্পানি থেকে প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে অর্থ দেওয়া হয়েছে।
বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মহারাষ্ট্র ও পশ্চিমবঙ্গ সরকারকে ৫০ হাজার পিপিই কিট দেওয়া হবে।

এছাড়াও এক সাথ ফাউন্ডেশনের সঙ্গে হাত মিলিয়ে রেড চিলিজের তরফে টানা এক মাস ৫৫ হাজার পরিবারের খাদ্যের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। রোটি ব্যাঙ্ক ফাউন্ডেশনের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে ১০ হাজার মানুষকে ৩ লাখ প্যাকেট খাবার বিতরণ করবে কিং খানের সংস্থা। এছাড়াও ওয়ার্কিং পিপলস চার্টারের সঙ্গে হাত মিলিয়ে ২৫০০ শ্রমিককে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস কেনার জন্য টাকা দেওয়া হবে। এছাড়াও ১০০ জন অ্যাসিড আক্রান্তের পাশে দাঁড়াবে শাহরুখ খানের সংস্থা।