কলকাতা: করোনার জেরে দেশের স্বাস্থ্যক্ষেত্রে চরম সংকট মুহূর্তে দেশবাসীকে আপদকালীন ফান্ডে যথাসাধ্য সাহায্যের জন্য আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীরা। দেশের প্রথম সারির অ্যাথলিট থেকে শুরু করে রুপোলি পর্দার অভিনেতা-অভিনেত্রীরা যখন সেই ফান্ডে নিজেদের সাধ্যমতো অর্থদান করছেন, সেই সময় শাহরুখ খানের মৌনতা নিয়ে উঠছিল প্রশ্ন।

অবশেষে সমালোচকদের জবাব দিয়ে করোনা মোকাবিলায় একগুচ্ছ অনুদানের কথা ঘোষণা করলেন কিং খান। তাও আবার তাঁর ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট ক্লাব কেকেআর’কে সামনে রেখে। করোনা মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর তহবিল তো তো বটেই, একইসঙ্গে পশ্চিমবঙ্গ ও মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর তহবিলেও একাধিক উপায়ে সাহায্যের ঘোষণা করল শাহরুখের প্রোডাকশন হাউস রেড চিলিজ এন্টারটেইনমেন্ট, মীর ফাউন্ডেশন।

আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর মধ্যে করোনা তহবিলে অর্থদানে সর্বপ্রথম অর্থদানে উদ্যোগী হয়েছিল কিংস ইলেভেন পঞ্জাব। কয়েকগুণ এগিয়ে এবার উদ্যোগী হল কলকাতা নাইট রাইডার্স। এক বিবৃতি মারফৎ করোনা মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে অর্থদানের কথা ঘোষণা করেছে তারা। তবে আর্থিক অনুদান হিসেবে তারা ঠিক কী পরিমাণ অর্থ তুলে দিচ্ছে তা যদিও পরিষ্কার নয়। কেকেআর ফ্র্যাঞ্চাইজির তরফে না হলেও নাইট মালিক শাহরুখ খান, স্ত্রী গৌরী খান এবং তাঁদের মীর ফাউন্ডেশন আলাদা করে আর্থিক অনুদান প্রদান করেছে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে।

এরাজ্যেও করোনার বিরুদ্ধে যৌথ উদ্যোগে সচেতনতামূলক প্রচারে অংশ নেবে কেকেআর ও মীর ফাউন্ডেশন। একইসঙ্গে বাংলা ও মহারাষ্ট্রের স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য ৫০ হাজার পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ ইকুইপমেন্ট বা সংক্ষেপে (পিপিই) কিটস তুলে দেওয়ারও সিদ্ধান্ত নিয়েছে কলকাতা নাইট রাইডার্স ও শাহরুখের মীর ফাউন্ডেশন।