নয়াদিল্লি: বুধবার শিখ ফর জাস্টিসের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে ভারত সরকার। ঘটনার প্রতিক্রিয়ায় তার ঠিক একদিন পরেই হুমকি দিয়ে তারা জানিয়ে দিল স্বাধীনতা দিবসের দিন ভারতের আশেপাশের বিভিন্ন দেশে খালিস্তানের পতাকা লাগাবে তারা।

টাইমস অফ ইন্ডিয়ার রিপোর্টের ভিত্তিতে, ত্রিকলর পুড়িয়ে দেওয়ার জন্য এই সংগঠনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয় বলে জানা গিয়েছে। শিখ ফর জাস্টিসের আইনি উপদেষ্টা এবং মুখপাত্র গুরপাতয়ান্ত সিং পান্নুন একটি ভিডিও প্রকাশ করেছেন। যেখানে দেখা গেছে ভারতের পতাকা পুড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। সেই সঙ্গে পান্নুন ঘোষণা করেছেন, স্বাধীনতা দিবসের দিন ভারতের আশেপাশের বিভিন্ন দেশে খালিস্তানের পতাকা লাগাবে তাদের সংগঠন।

টাইমস অফ ইন্ডিয়াকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পান্নুন বলেছেন, খালিস্তান হল শিখদের রাজনৈতিক দুর্গ। শিখ ফর জাস্টিসের উদ্দেশ্য হল ২০২০ সালে গণভোটের মাধ্যমে সদস্য পদ বৃদ্ধি করা। এসএফজে’র আইনি উপদেষ্টা আরও যোগ করেছেন, এই সংগঠনটি ২০২০ সালে গণভোটের প্রচার চালাচ্ছে। এছাড়াও পান্নুনকে ওই ভিডিওতে বলতে শোনা গিয়েছে, ভারত সরকার অন্যায়ভাবে তাদের আন্দোলনকে দমন করার চেষ্টা করেছে। তিনি আরও বলেছেন, এসএফজে বুলেট নয় ব্যালটে বিশ্বাসী।

ক্যাপ্টেন সিং এটিকে আইএসআই সমর্থিত সংগঠনটির ভারত বিরোধী প্রথম পদক্ষেপ বলেও দাবি করেছেন। গত বছর অগাস্টে খালিস্তান সমর্থক সংগঠনটি একটি সমাবেশে শিখদের জন্য পৃথক দেশের দাবি জানিয়েছিল।