বেঙ্গালুরু: খুব সহজ হচ্ছে না কর্ণাটক বিধানসভার ক্ষমতা দখল। শপথ নেওয়ার আগের দিনেই উঠল নয়া দাবি। একজন মুসলিম বিধায়ককে উপ-মুখ্যমন্ত্রী করার দাবি করল ওই রাজ্যের একাধিক মুসলিম সংগঠন।

বুধবার কর্ণাটক রাজভবনে শপথ নেবেন কংগ্রেস-জেডি(এস) জোট সরকারের মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামী। এই জেডি(এস) মুখ্যমন্ত্রীর মন্ত্রীসভার শপথ গ্রহণের আগের দিনেই একাধিক মুসলিম সংগঠনের এই দাবিতে স্বভাবতোই অস্বস্তিতে কংগ্রেস-জেডিএস।

আরও পড়ুন- রেকর্ড হারে মুসলিম সদস্য কমল কর্ণাটক বিধানসভায়

কর্ণাটকের বিধানসভা নির্বাচনে ৭৮ টি আসন পেয়েছে কংগ্রেস। জেডি(এস) দখল করেছে ৩৮ টি আসন। বিজেপি ১০৪টি আসন পেলেও সংখ্যাগরিষ্ঠ হতে পারেনি আট আসন কম থাকার কারণে। সেই কারণে জোটবদ্ধ হয়ে সরকার গঠনের সিদ্ধান্ত নেয় কংগ্রেস এবং জেডি(এস)।

জোট সরকারে একজন মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন এইচডি কুমারস্বামী। তাঁর মন্ত্রীসভায় থাকবেন দুই জন উপ-মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রীর পদ জেডি(এস) দলের জন্য ছেড়ে দেয় কংগ্রেস। কিন্তু, দুই উপ-মুখ্যমন্ত্রী হবেন কংগ্রেস বিধায়কেরা। মন্ত্রীত্বের ক্ষেত্রেও হবে নানান সমঝোতা। এই ধরনের শর্তেই জোটবদ্ধ হয়েছে দুই রাজনৈতিক দল। সরকার গঠন এবং জোট রাজনীতি পরিচালনার বিষয়ে সোমবার দিল্লিতে গিয়ে কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করেছেন কুমারস্বামী।

মুসলিম উপ-মুখ্যমন্ত্রীত্বের দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন

এরপরে মঙ্গলবারেই দাবি উঠছে মুসলিম বিধায়ক রোশন বাইগকে উপ-মুখ্যমন্ত্রী করার। এই কংগ্রেস বিধায়ক এই নিয়ে সাত বার বিধানসভা নির্বাচনে জয় হাসিল করলেন। ৬৬ বছরের এই বিধায়ক আল-আমিন এডুকেশনাল সোসাইটির ভাইস চেয়ারম্যান। তাঁর রাজনৈতিক জীবন শুরু হয়েছিল ১৯৮৫ সালে জনতা দলের হাত ধরে। পরে তিনি কংগ্রেসে যোগদান করেন। ২০১৮ সালের বিধানসভা নির্বাচনে শিবাজিনগর কেন্দ্র থেকে লড়াই করে বিজেপি প্রার্থী তথা রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী কাট্টা সুব্রহ্মন্যম নাইডুকে ১৫ হাজার ভোটে পরাস্ত করেছেন।

সাত বারের বিধায়ক এই মুসলিম নেতা রোশান বাইগকে এবার উপ-মুখ্যমন্ত্রী করার দাবি করেছেন ওই রাজ্যের একাধিক মুসলিম সংগঠন। যদিও এই বিষয়ে প্রদেশ কংগ্রেস নেতৃত্বের পক্ষ থেকে কিছু জানানো হয়নি। তবে মুসলিম সংগঠনগুলির দাবির পরিপ্রেক্ষিতে বিধায়ক রোশান বাইগ বলেছেন, “দাবি কোনও বাক্তি বা সংগঠন করতেই পারে। এতে ভুল কিছু নেই। তবে যা সিদ্ধান্ত নেওয়ার হাইকম্যান্ড নেবে।”

রোশান বাইগ

বুধবার কর্ণাটক রাজভবনে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেবেন মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামী। সেই শপথ গ্রহণের অনুষ্ঠানে হাজির থাকবেন সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধী, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, চন্দ্রবাবু নাইডু, মায়াবতী, অখিলেশ যাদব এবং অরবিন্দ কেজরিওয়াল।