কলম্বো: কানাডার রাজধানী শহর টরন্টোয় গাড়ি দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে প্রাক্তন শ্রীলঙ্কা অধিনায়ক সনথ জয়সূর্যর। রবিবার রাত থেকেই এমন খবরে উত্তাল হয়ে ওঠে সোশ্যাল মিডিয়া। ঘটনায় উদ্বিগ্ন রবিচন্দ্রন অশ্বিন সহ বেশ কিছু ক্রিকেটার উদগ্রীব হয়ে ওঠেন ঘটনার সত্যতা যাচাইয়ের জন্য। গুজব উড়িয়ে শেষমেষ শুভাকাঙ্খীদের সনথ জয়সূর্য নিজেই জানালেন, তিনি শ্রীলঙ্কায় রয়েছেন এবং সম্পূর্ণ সুস্থ রয়েছেন।

কানাডা সফরকালীন টরন্টোয় গত ২০ মে এক গাড়ি দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে সনথ জয়সূর্যের। রবিবার রাতে এমন একটি ভুয়ো খবর সামনে আসতেই তোলপাড় হয়ে ওঠে সোশ্যাল মিডিয়া। এমনকি রিপোর্টে উল্লেখ করা হয় গুরুতর জখম অবস্থায় জয়সূর্যকে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করে। পরে জয়সূর্যর দেহ সনাক্ত করা হয়। কানাডায় অবস্থিত শ্রীলঙ্কা দূতাবাসের পক্ষ থেকে প্রাক্তন এই ক্রিকেটারের মৃত্যুর খবর সম্পর্কে নিশ্চিত করা হয়েছে বলে রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়।

আরও পড়ুন: বোলিং বিভাগে বৈচিত্র্যের কারণে ফেভারিট কোহলির ভারত: চ্যাপেল

স্বভাবতই এমন খবর শোনার পর উদ্বেগ ছড়িয়ে পড়ে ক্রিকেট মহলে। সোমবার সকালে ভারতীয় স্পিনার রবি অশ্বিন ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে টুইটারে লেখেন, ‘সনথ জয়সূর্যর মৃত্যুর খবর কি সত্যি? হোয়াটস অ্যাপে আমি এমনই একটি খবর পেলাম কিন্তু টুইটারে এবিষয়ে কিছু জানতে পারছি না।’ সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে জয়সূর্যর মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ে ক্রিকেটারের পরিবারের কাছেও। গোটা ঘটনায় বিরক্ত জয়সূর্য এরপর স্বয়ং আসরে নামেন।

আরও পড়ুন: সাংসদ হিসেবে গম্ভীরকে নির্বাচন করেছেন কারা, প্রশ্ন আফ্রিদির

গুজব উড়িয়ে এক বিবৃতিতে জয়সূর্য অনুরাগীদের আশ্বস্ত করেন। একইসঙ্গে এমন খবর শেয়ার করে তাঁর পরিবারের অস্বস্তি না বাড়ানোর অনুরোধ করেন তিনি। বিবৃতিতে দ্বীপ রাষ্ট্রের প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক এবং প্রশাসক জয়সূর্য বলেন, ‘গত রাত থেকে গাড়ি দুর্ঘটনায় আমার মৃত্যুর যে খবর প্রচার হচ্ছে, তা আমার পরিবারকে যথেষ্ট অস্বস্তিতে রেখেছে। আপনাদের কাছে অনুরোধ এমন খবর এড়িয়ে চলুন।’ একইসঙ্গে ভুয়ো খবর নস্যাৎ করে প্রাক্তন বিধ্বংসী ওপেনার বলেন, ‘সাম্প্রতিক সময়ে আমি কানাডা যাইনি। আমি শ্রীলঙ্কাতেই রয়েছি এবং সম্পূর্ণ সুস্থ আছি।’