সাউদাম্পটন: ইংল্যান্ড শিবিরে স্বস্তির খবর৷ করোনা আবহে আন্তর্জাতিক সিরিজের আগে বৃহস্পতিবার হঠাৎ যে কালো মেঘ দেখা গিয়েছিল, ক্রমশ তা সরে গিয়েছে৷ ইংল্যান্ড দলের অল-রাউন্ডার স্যাম কারেনের কোভিড-১৯ টেস্ট রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে৷ শুক্রবার ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের তরফে এমনটাই জানানো হয়েছে৷

বুধবার থেকে সাউদাম্পটনের অ্যাজাস বোলে শুরু হচ্ছে ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের প্রথম টেস্ট৷ করোনাভাইরাস আবহে প্রায় চার মাস পর শুরু হচ্ছে বাইশ গজের লড়াই৷ কিন্তু সেই শুরুর আগেই দেখা দিয়েছিল অশনি সংকেত৷ বুধবার নিজেদের প্র্যাকটিস ম্যাচে খেলার পর রাতেই স্যাম কারেন অসুস্থবোধ করায় তড়িঘড়ি তাঁকে আইসোলেশনে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয় ইংল্যান্ড টিম ম্যানেজমেন্ট৷ তার আগে ব্যাটিং করে ১৫ রানও করেন ইংল্যান্ড অল-রাউন্ডার৷ কিন্তু ইংল্যান্ডের তিন দিনের আন্তঃ-স্কোয়াড অনুশীলন ম্যাচের বাকি দিনগুলি মাঠে নামতে পারেননি৷

বৃহস্পতিবার বিকেলে ২২ বছর বয়সি এই ক্রিকেটার ভালো বোধ করেছেন। তাঁর কোভিড-১৯ টেস্টও কার হয়৷ টিম ডাক্তার দ্বারা পর্যবেক্ষণে ছিলেন তিনি৷ শুক্রবার তাঁর কোভিড-১৯ টেস্ট রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে৷ দ্রুত তিনি আবার দলের সঙ্গে প্র্যাকটিসে যোগ দেবেন বলে ইসিবি-র তরফে জানানো হয়েছে৷

এক বিবৃতিতে ইসিবি জানিয়েছে, ‘ইংল্যান্ড ক্রিকেটার স্যাম কারেন বৃহস্পতিবার কোভিড-১৯ টেস্ট করা হয়েছিল, শুক্রাবর তার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে৷ সারের অল-রাউন্ডার বুধবার নিজেদের মধ্য প্র্যাকটিস ম্যাচ খেলার পর অসুস্থবোধ করে৷ ফলে ওকে সঙ্গে সঙ্গে আইসোলেশনে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল৷ তবে রিপোর্ট নেগেটিভ আসায় শীঘ্রই দলের সঙ্গে প্র্যাকটিসে যোগ দেবে৷ তবে আগামী ২৪ থেকে ৪৮ ঘণ্টা ওকে টিম ডক্টর পর্যবেক্ষণে রাখবে৷ রবিবার ফের ওর কোভিড-১৯ টেস্ট করা হবে৷’

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ শুরুর আগে ইংল্যান্ড ২৩ জুন ৩০ সদস্যের প্রশিক্ষণ দল নিয়ে অ্যাজাস বোলে পৌঁছেছিল। খেলোয়াড়, সাপোর্ট স্টাফ, ম্যাচ অফিসার, ইসিবি স্টাফ, ভেন্যু স্টাফ এবং হোটেল কর্মীদের জন্য এই পরীক্ষা করা হয়েছিল। প্রথম টেস্ট আগামী ৮ জুলাই সাউদাম্পটনের অ্যাজাস বোলে শুরু হতে চলেছে৷ সিরিজের বাকি দু’টি টেস্ট হবে ম্যাঞ্চেস্টারে যথাক্রমে ১৬ থেকে ২০ এবং ২৪ থেকে ২৮ জুলাই৷

সপ্তম পর্বের দশভূজা লুভা নাহিদ চৌধুরী।