মুম্বই- নেটিজেনদের মাঝে সেক্রেড গেমস অন্যতম জনপ্রিয় ওয়েব সিরিজ। একদিকে গণেশ গাইতোণ্ডের অন্ধকারাচ্ছন্ন জীবন, অন্যদিকে সৎ পুলিশকর্মী সরতাজ এই দুজনকেই মুখ্য চরিত্র হিসেবে দেখা গিয়েছিল প্রথম সিজনে। দ্বিতীয় সিজনে সংযোজন হয় নতুন চরিত্র গুরুজির। প্রথম সিজন নেটিজেনদের মধ্যে এতটাই জনপ্রিয় হয় যে দ্বিতীয় সিজনের জন্য অপেক্ষা করেছিলেন তাঁরা। কিন্তু দ্বিতীয় সিজন তেমন প্রতিক্রিয়া পায়নি। এবার এই বিষয়ে মুখ খুললেন সইফ আলি খান।

সইফ সেক্রেডে গেমস-এ সরতাজের ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। প্রথম সিজনটিতে বার বার উঠে এসেছে মুম্বই শহরকে ঘিরে হয়ে চলা অপরাধ। অন্যদিকে দ্বিতীয় সিজন অনেকটাই দর্শনি নির্ভর হয়ে পড়ে। সইফ আলি খান বলছেন, পার্ট ১-এ যেমন প্রতিক্রিয়া পেয়েছিলাম, দ্বিতীয় সিজনে তেমন প্রতিক্রিয়া না পাওয়ায় আমি খুব একটা খুশি নই। অনেকেরই দ্বিতীয় সিজনকে আলাদা মনে হয়েছে। আর এটা আলাদাই হওয়ার কথা।

প্রথম সিজনের শেষ দৃশ্য রহস্যে মোড়া ছিল। অন্যদিকে দ্বিতীয় সিজনের শেষ দৃশ্যে ছিল একটি পারমাণবিক হামলা। এই বিষয়ে সইফ বলছেন, দ্বিতীয় সিজনেক শেষটা আমার খারাপ লাগেনি। ধোঁয়াসা ছিল, সরতাজ বাঁচাতে পারবে অথবা পারবে না। কিন্তু প্রথম সিজনে কুক্কুর মতো চরিত্র ছিল। আমার চরিত্রটাও যেভাবে বিবর্তিত হয়েছিল তাও দেখার মতো ছিল। পরিচালক হিসেবে বিক্রম মোতওয়ানে সত্যিই ভাল কাজ করেছিলেন।

সইফ জানিয়েছেন, দ্বিতীয় সিজনে গুরুজির অংশ বেশি থাকায় তা অনেকেরই বেশি পছন্দ হয়নি। এই চরিত্রে পঙ্কজ ত্রিপাঠিকে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে। দ্বিতীয় সিজনেও যেহেতু ধোঁয়াসা রয়েছে তাই নেটিজেনদের অনেকেই তৃতীয় সিজনের অপেক্ষা করে রয়েছেন। কিন্তু সইফ আলি আগে এক সংবাদমাধ্যমের কাছে বলেছিলেন, এই সিরিজের তৃতীয় সিজন তৈরি করার আর কোনও রকমের পরিকল্পনা নেই।