কলকাতা: প্রাথমিকভাবে তাঁকে ট্রায়ালে দেখে টিম ম্যানেজমেন্ট সন্তুষ্ট হলেও দিনকয়েকের জন্য ফিরে গিয়েছিলেন গোয়ায়। ইস্টবেঙ্গলের তরফ থেকে সবুজ সংকেত পেলেও পুরনো ক্লাব সালগাওকারের সঙ্গে চুক্তি সংক্রান্ত কিছু সমস্যা তৈরি হয় গত মরশুমে গোয়া প্রো-লিগে সর্বোচ্চ গোলদাতা রোনাল্ডো অলিভিয়েরার।

শেষ অবধি পুরনো ক্লাবের সঙ্গে চুক্তি সংক্রান্ত সব সমস্যা কাটিয়ে ইস্টবেঙ্গলে চূড়ান্ত হলেন রোনাল্ডো। রবিবারই গোয়ানিজ এই স্ট্রাইকারের ক্লাবে যোগদানের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়। রোনাল্ডো যোগ দেওয়ায় স্ট্রাইকার সমস্যা মিটতে চলেছে লাল-হলুদে। তবে চলতি ডুরান্ডে দলের আপফ্রন্টে তাঁকে পাওয়ার কোনওরকম সম্ভাবনা নেই আলেজান্দ্রোর। কারন ইতিমধ্যেই ডুয়ান্ডের জন্য ২২ ফুটবলারের নাম রেজিস্ট্রেশন হয়ে গিয়েছে সব দলের। তবে কলকাতা লিগের ম্যাচে রোনাল্ডোকে না পাওয়ার কোনও কারণ নেই। রবিবার রাতেই শহরে পা দিয়েছেন। সোমবার দলের সঙ্গে অনুশীলনও সারলেন এই গোয়ানিজ।

রোনাল্ডো অলিভিয়েরার পাশাপাশি পঞ্চম বিদেশি হিসেবে একজন স্ট্রাইকারকে খুব শীঘ্রই চুড়ান্ত করার পথে লাল-হলুদ। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে স্পেনের তৃতীয় ডিভিশন ক্লাব অ্যাটলেটিকো বালরেজে খেলা মার্কোস এসপাদা মার্টিনকে পঞ্চম বিদেশি হিসেবে দিন তিনেকের মধ্যে চূড়ান্ত করতে পারে ক্লাব। এর আগে হংকং প্রিমিয়র লিগেও বছর তেত্রিশের এই স্প্যানিশ স্ট্রাইকারের খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে।

এদিকে শতবর্ষ উপলক্ষ্যে পূর্ব নির্ধারিত সূচী অনুযায়ী বিশ্বের ১০০টি দেশে উড়ল লাল-হলুদ পতাকা। ব্রিটেনের বেঙ্গল হেরিটেজ ফাউন্ডেশনের সঙ্গে ইস্টবেঙ্গল ফ্যান ফোরামগুলির যৌথ উদ্যোগে সামিল হয়েছিল ইনভেস্টর গ্রুপ কোয়েসও। লন্ডনে লাল-হলুদ পতাকা তুললেন ক্লাবের প্রাক্তন কিংবদন্তি চিমা ওকেরি। নিউ জার্সিতে এই কর্মযজ্ঞে সামিল হলেন আসিয়ান জয়ের অন্যতম নায়ক মাইক ওকোরো। শতবর্ষ অনুষ্ঠানে ক্লাবের তরফ থেকে তাঁকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি বলে প্রাথমিকভাবে অভিমান করেছিলেন ওকোরো।

কিন্তু পরে ক্লাবের তরফ থেকে মেল করে তাঁকে নিউ জার্সিতে লাল-হলুদ ফ্ল্যাগ হোয়েস্টিংয়ে সামিল হওয়ার অনুরোধ জানানো হয়। শেষমেষ অভিমান দূরে সরিয়ে যুক্তরাজ্যের মাটিতে লাল-হলুদ পতাকা উড়িয়ে উচ্ছ্বসিত ওকোরো। বেলজিয়ামে লাল-হলুদ পতাকা উত্তোলন করেন ক্লাবের প্রাক্তন কোচ ফিলিপ ডি রাইডার। এছাড়াও আমস্টরডাম থেকে কুয়ালা লামপুর, অকল্যান্ড থেকে টরন্টো। শতবর্ষে বিশ্বের ১০০ দেশে উড়ল লাল-হলুদ পতাকা।