স্টাফ রিপোর্টার,বাঁকুড়া: সাত সকালে টাটা ম্যাজিকের ধাক্কায় মৃত্যু হল বাবা ও ছেলের। এই ঘটনায় গুরুতর আহত আরও একজন। মৃতদের নাম অবিনাশ মণ্ডল (৫০) ও অভিজিৎ মণ্ডল (২৫)। দু’জনেই পেশায় মাছ ব্যবসায়ী৷ বৃহস্পতিবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার সোনামুখী পুরসভা এলাকায়।

পাত্রসায়র থানা এলাকার নারায়নপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বারাসাত গ্রামের বাসিন্দা অবিনাশ ও তাঁর ছেলে অভিজিৎ মণ্ডল৷ অন্যান্য দিনের মতো এদিনও তাঁরা সোনামুখী শহরে মাছ কিনতে এসেছিলেন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সকালে পুরসভার কাছে একটি চায়ের দোকানের সামনে তারা চা খাচ্ছিলেন৷ সেই সময় একটি বেপরোয়া টাটা ম্যাজিক তাদের ধাক্কা মারে।

ম্যাজিকের ধাক্কায় দু’জনেই রাস্তায় ছিটকে পড়েন৷ ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় বাবা ও ছেলের। এই ঘটনায় অশোক বাগদী নামে আরও একজন গুরুতর আহত হন। তাঁকে প্রথমে সোনামুখী হাসপাতাল ও পরে বাঁকুড়া সম্মিলনী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তাঁর অবস্থা স্থিতিশীল বলে খবর৷

অবিনাশ ও অভিজিৎ এর মৃত্যুর ঘটনায় পরিবারে নেমে আসে শোকের ছায়া৷ মৃতদের আত্মীয় অমল চন্দ্র হালদার জানান, অভিজিৎ মণ্ডল সম্পর্কে তাঁর মামাতো ভাই। একমাস আগে তাঁর বিয়ে হয়েছিল। মামা অবিনাশ মণ্ডলের রোজগারেই মূলত তার মামা বাড়ির সংসার চলত। এখন সংসার কীভাবে চলবে সেই চিন্তা গ্রাস করেছে গোটা পরিবারকে৷

এদিকে এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। অনেকে বিক্ষোভ দেখান৷ ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘাতক টাটা ম্যাজিকটিকে পুলিশ আটক করেছে। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, মৃতদেহ দু’টি ময়নাতদন্তের জন্য বিষ্ণুপুর জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তদন্ত শুর হয়েছে।