পেশোয়ার: ‘তোমায় কোনও দিন ভুলব না’ পাকবাসীর মনে তুমি থাকবে চিরকাল৷ এমনই বার্তা দিয়ে প্রয়াত শশী কাপুরের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করলেন পেশোয়ারবাসী৷ মুম্বইয়ে শশী কাপুরের প্রয়াণ হয়েছে গত ৪ ডিসেম্বর৷ সেই খবরে পেশোয়ার জুড়ে চলছে প্রয়াত অভিনেতার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন৷ কাপুর পরিবারে পৈত্রিক বাড়ির সামনে তাঁর গুণমুগ্ধরা এসেছেন৷

পাক সংবাদ মাধ্যম জানাচ্ছে, একটি বিশাল পোস্টার দেওয়া হয়েছে কাপুর হাভেলির সামনে৷ সেই পোস্টারে লেখা আছে, ‘peshawar will never ever forget you’.

বাড়িটা শতবর্ষের দোরগোড়ায়৷ পুরনো বাড়ির সামনে আধুনিক পাক প্রজন্মের ভিড়৷ তারা দেখছেন শশী কাপুরের ছবি, তাঁর প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে লিখছেন দু চার কথা৷ বয়স্করা স্মৃতি রোমন্থন করে শশী কাপুরের বিভিন্ন ছবির কথা জানাচ্ছেন৷

পড়ুন: ‘অমর’ নেই বিশ্বাস করতে পারছেন না পাকিস্তানিরা

পেশোয়ারের বিখ্যাত কিসসা কাহানি বাজার৷ এই বাজারেই আছে কাপুর হাভেলি৷ ১৯১৮ সালে এই বাড়ি তৈরি করিয়েছিলেন প্রয়াত শশী কাপুরের ঠাকুরদা ভাস্বরনাথ কাপুর৷ এই বাড়িতেই থাকতেন কিংবদন্তি অভিনেতা পৃথ্বীরাজ কাপুর৷ তাঁরই পুত্র রাজ কাপুরের জন্ম কাপুর হাভেলিতে৷ ১৯৪৭ সালে পাকিস্তান ছেড়ে কাপুর পরিবার ভারতে চলে আসে৷ ১৯৩৮ সালে কলকাতায় জন্ম হয়েছিল প্রখ্যাত ভারতীয় অভিনেতার শশী কাপুরের৷

পৈত্রিক বাড়ির সূত্রে পেশোয়ারবাসীর গর্ব শশী কাপুর৷ শুধু তিনিই নন, প্রবীণ অভিনেতা দিলীপ কুমারের পৈত্রিক বাড়িও পেশোয়ারে৷ তাঁকে নিয়েও অত্যন্ত গর্ব অনুভব করেন পেশোয়ার সহ পাকিস্তানিরা৷

আরও পড়ুন: কোই হোতা জিসকো আপনা…

১৯৯০ সালে পৈত্রিক বাড়ি দর্শনে এসেছিলেন শশী কাপুর৷ সঙ্গে ছিলেন, তাঁর ভাই রণধীর কাপুর ও ভাইপো ঋষি কাপুর৷ সেই ছবি অম্লান এখনো পেশোয়ারবাসীর কাছে৷

- Advertisement -