প্রতীকী ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: প্রাথমিক টেট নিয়ে এবার স্বস্তি ফেলল ডিএলএড পড়ুয়ারা৷ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে এই কোর্স বাধ্যতামূলক ছিল৷ তবে চলতি বছরে জানুয়ারি মাসে বিজ্ঞপ্তি জারি করে NCTE জানিয়ে দেয় যারা বি.এড করেছেন তারাও প্রাইমারি শিক্ষক নিয়োগের পরীক্ষায় বসতে পারবেন৷ আর এখানেই আপত্তি জানায় ডিএলএড পড়ুয়ারা বা প্রার্থীরা৷

ডিএলএড-দের দাবি বি.এড প্রার্থীদের এই সুযোগ দিলে ডিএলএড কোর্সটির গুরুত্ব কমে যাবে৷ যার প্রভাব পড়বে বহু কলেজের ওপর৷ প্রায় ৬০০ কলেজ বন্ধ হয়ে যেতে পারে এর ফলে৷

পড়ুন: শিক্ষক নিয়োগকে কেন্দ্র করে হাইকোর্টে ভর্ৎসিত স্কুল সার্ভিস কমিশন

বুধবার বিচারপতি অরিজিৎ চক্রবর্তীর সিঙ্গল বেঞ্চে NCTE-র এই বিজ্ঞপ্তিতে আপত্তি জানিয়ে তাতে স্থগিতাদেশ দেওয়া হয়৷

পড়ুন: শিল্পে স্থাপনে মোদীর গুজরাতের ভরসা মমতার বাংলা

এদিকে, মাতৃত্বকালীন ছুটিতে থাকাকালীন এক শিক্ষিকার জায়গায় অন্য এক শিক্ষককে নিয়োগ করায় কলকাতা হাইকোর্টে তীব্র ভর্ৎসনার মুখে পড়তে হল স্কুল সার্ভিস কমিশন ও মধ্যশিক্ষা পর্ষদকে৷ মামলাকারী শিক্ষিকার মাতৃত্বকালীন ছুটি শেষ না হওয়া পর্যন্ত স্কুল কাউকে নিয়োগ করতে পারবে না বলে নির্দেশ দেয় হাইকোর্ট৷