মুম্বই: ফের ভারতীয় ডেসিংরুমে শোনা যাবে শাস্ত্রীয় সঙ্গীত! তবে তা বেসুরে বাজলেও কিছুই এসে যাবে না৷ কারণ বিরাটের পছন্দের সেই রবি শাস্ত্রীকেই টিম ইন্ডিয়ার প্রধান কোচ হিসেবে ফের বেছে নিল ক্রিকেট অ্যাডভাইজারি কমিটি৷ সিএসি’র তিন সদস্য কপিল দেব, অংশুমান গায়কোয়াড় ও শান্তা রঙ্গস্বামী শুক্রবার মুম্বইয়ে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের সদর দফতরে বিরাট-রোহিতদের ‘হেডস্যার’ বেছে নেয়৷

ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রধান কোচ পদপ্রার্থীদ ছ’জনের ইন্টারভিউ নেয় তিন সদসের ক্রিকেট অ্যাডভাইজারি কমিটি৷ জাতীয় নির্বাচক কমিটির প্রধান এমএসকে প্রসাদের উপস্থিতিতে বিরাট কোহলিদের পরবর্তী কোচ বেছে নেন কপিল-অংশুমানরা৷ ইন্টারভিউ দেওয়ার জন্য এদিন সকালে বিসিসিআই হেড-কোয়ার্টার ক্রিকেট সেন্টারে উপস্থিত হয়েছিলন মাইক হেসেন, রবিন সিং, লালচাঁদ রাজপুত৷ আর অস্ট্রেলিয়া থেকে স্কাইপিতে ইন্টারভিউ নেওয়া হয় টম মুডি’৷ তবে ছ’জনের বাছাই তালিকায় থাকলেও এদিন ইন্টারভিউ শুরুর আগে ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে টিম ইন্ডিয়ার কোচের রেস থেকে সরে দাঁড়ান টি-২০ বিশ্বকাপ জয়ী প্রাক্তন ওয়েস্ট ইন্ডিজ কোচ ফিল সিমন্স৷

সদ্যসমাপ্ত ২০১৯ বিশ্বকাপের পরই শাস্ত্রী-সহ সহকারী কোচের মেয়াদ শেষ হয়ে যায়৷ কিন্তু তড়িঘড়ি কাউকে দায়িত্ব দেওয়া সম্ভব নয় বলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর পর্যন্ত শাস্ত্রী ও তাঁর সহকারীদের হাতেই বিরাটদের কোচের দায়িত্ব রেখে দেয় বোর্ড৷ অর্থাৎ ক্যারিবিয়ান সফরের পরেই বিরাটদের নতুন কোচ ঘোষণা করবে বিসিসিআই৷ ২০১৭ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির পরই অনিল কুম্বলের উত্তরসূরি হিসেবে প্রধান কোচের দায়িত্ব নেন শাস্ত্রী৷ কিন্তু শাস্ত্রীর কোচিংয়ে সদ্যসমাপ্ত বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে থেমে যায় ভারতের দৌড়৷ তবুও শাস্ত্রীর হয়েই তদবীর করেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে বিমান ধরার আগে বিরাট বলেন, ‘তাঁর সঙ্গে শাস্ত্রীর বোঝাপড়া ভালো।’ অর্থাৎ কোচ হিসেবে শাস্ত্রীর প্রতি তাঁর সমর্থনের কথা জানিয়ে দেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷ সম্প্রতি কলকাতায় এসে সিএসি কমিটির অন্যতম সদস্য কপিল বলেন, কোহালির বক্তব্যকেও গুরুত্ব দেওয়া উচিত। শুক্রবার মাইক হেসেন, রবিন সিংদের লোকদেখানি ইন্টারভিউ নেন কপিল-অংশুমানরা৷ আর এই মুহূর্তে বিরাটদের সঙ্গে ক্যারিবিয়ান সফরে থাকা শাস্ত্রীর ইন্টারভিউ নেওয়া হয় স্কাইপি-এর মাধ্যমে৷ তার পরই ৫৭ বছরের প্রাক্তন ভারতীয় ব্যাটসম্যানে নামে সিলমোহর দেয় ক্রিকেট অ্যাডভাইজারি কমিটি৷

২০২১-এর নভেম্বর পর্যন্ত প্রধান কোচের দায়িত্ব সামলাবেন শাস্ত্রী৷ এর মধ্যে বড় ইভেন্ট আগামী বছর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টি-২০ বিশ্বকাপ৷ পরের বছর অর্থাৎ ২০২১-এ ভারতের মাটিতে টি-২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত মেন ইন ব্লু’র প্রধান কোচ থাকবেন শাস্ত্রী৷ ক্যারিবিয়ান সফরের শেষে অর্থাৎ ঘরেরে মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ দিয়ে ‘মেন ইন ব্লু’-র প্রধান কোচ হিসেবে দ্বিতীয় অধ্যায় শুরু করবেন শাস্ত্রী৷ তার আগে অবশ্য শাস্ত্রীর সহকারীদের বেছে নেওয়া হবে৷