ত্রিনিদাদ: ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়র লিগের হাত ধরে করোনা আবহে শুরু হয়েছে গ্লোবাল টি-২০ ক্রিকেট লিগ। আর সিপিএলের প্রথমদিনেই ব্র্যায়ান লারা স্টেডিয়াম সাক্ষী থাকল বাইশ গজের এক উত্তেজক লড়াইয়ের। প্রথম দিনেই সিপিএলে দাগ কাটলেন সুনীল নারিন ও রশিদ খান৷

গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্সকে ৪ উইকেটে হারিয়ে উদ্বোধনী ম্যাচ জিতে যাত্রা শুরু করে ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্স। সেই সঙ্গে টানা ১১ ম্যাচে গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্সের বিজয়রথ থামিয়ে দেন কিং খানের দল৷ বল হাতে ২ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি ব্যাট হাতে ঝোড়ো হাফ-সেঞ্চুরি নাইটদের ম্যাচের নায়ক নারিন। স্বাভাবিকভাবেই আইপিএল শুরুর ঠিক আগেই নারিনের পারফরম্যান্স আশ্বস্ত করছে কলকাতা নাইট রাইডার্সকে৷

প্রথম দিন অন্য একটি ম্যাচে বার্বাডোস ট্রাইডেন্টস ব্রায়ান লারা অ্যাকাডেমিতে সেন্ট কিটস ও নেভিস প্যাট্রিয়টকে ৬ রানে হারিয়ে সিপিএলে যাত্রা শুরু করে৷

উদ্বোধনী ম্যাচে নারিন চার ওভারে ১৯ রানের বিনিময়ে দু’টি উইকেট নেওয়ার পাশাপাসি ২৮ বলে ৫০ রানের ইনিংস খেলে দলকে জেতাতে বড় ভূমিকা নেন৷ টার্গেট তাড়া করতে বিশেষ বেগ পেতে হয়নি ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্সকে৷ নারিনের পর নাইট রাইডার্সের হয়ে বাকি কাজটা করেন ব্রাভো ব্রাদার্স৷ ডারেন (৩০) এবং ডোয়েন ৬ রানে অপরাজিত থাকেন৷ ২ বল বাকি থাকতেই গায়ানার অ্যামাজন ওয়ারিয়র্সের বিরুদ্ধে চার উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় নাইট রাইডার্স৷

বৃষ্টি-বিঘ্নিত ম্যাচে এদিন ওভার সংখ্যা কমে ১৭ হয়৷ দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে ‘ব্ল্যাক লাইভস ম্যাটার’ মুভমেন্টকে সমর্থনের আবহে শুরু হয় ২০২০ ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়র লিগ। নাইট অধিনায়ক কাইরন পোলার্ড টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানান প্রতিপক্ষকে। প্রথম ওভারেই গত বছরের সিপিএল শীর্ষ স্কোরার ব্র্যান্ডন কিং’য়ের উইকেট তুলে নেন আহসান আলি।

চতুর্থ ওভারে চন্দ্রপল হেমরাজকে ফেরান সুনীল নারিন। তৃতীয় উইকেটে শিমরন হেটমেয়ারের সঙ্গে রস টেলরের জুটিতে ওঠে মূল্যবান ৫০ রান। এরপর টেলর ২১ বলে ৩৩ রানে ফিরলেও অর্ধশতরান পূর্ণ করেন হেটমেয়ার। মাত্র ৪৪ বলে ৬৩ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি৷

দ্বিতীয় ম্যাচে দলক জেতাতে বড় ভূমিকা নেন মাইকেল স্যান্টনার এবং রশিদ খান৷ স্যান্টনার ব্যাট হাতে ২০ রান করার পর ১৮ রান খরচ করে দু’টি উইকেট তুলে নেন৷ আর রশিদ ২৬ রানের গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলার পর ২৭ রান দিয়ে দু’টি উইকেট নেন৷ যা বার্বাডোস ট্রাইডার্সের জেতার পথ প্রশস্থ করে৷ সেন্ট কিটস ও নেভিস প্যাট্রিয়টসের ৬ রানে হারিয়ে প্রথম ম্যাচ জিতে টুর্নামেন্ট শুরু করে বার্বাডোস ট্রাইডার্স৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।