জয়পুর: শাস্তি কিংবা সচেতনতায় কোনও কাজ হচ্ছে না। আতঙ্ক বাড়ছে ক্রমশ। বারবার সামনে আসছে ভয়াবহ ঘটনা। এবার রাজস্থানের জয়পুর। ধর্ষকদের হাত থেকে বাঁচতে নগ্ন অবস্থাতেই রাস্তায় ছুটল কিশোরী। ঘটনায় তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

গত সোমবার ঘটে সেই ঘটনা। কিশোরী যখন মেলা থেকে ফিরছিল, তখনই তাকে অপহরণ করে ধর্ষণ করে তিন ব্যক্তি। সেই সঙ্গে শুরু হয়েছিল অকথ্য মারধর। এরপর কিশোরীকে উদ্ধার করার জন্য এক দোকানদার সেখানে যেতেই সেখান থেকে পালিয়ে যায় ওই কিশোরী। বাঁচার জন্য নগ্ন অবস্থাতেই ছুটতে শুরু করে সে।

রাজস্থানের ভিলওয়ারার বাসিন্দা ওই কিশোরী। বান্ধবী ও খুড়তুতো বোনের সঙ্গে একটি মেলা থেকে ফিরছিল সে। সেই সময় এক মন্দিরের কাছে তিন ব্যক্তি তাদের পথ আটকে দাঁড়ায়। তার বোন পালিয়ে যায় কোনোরকমে। কিন্তু ওই কিশরোরী নিস্তার পায়নি। তারপর সেখানেই তাকে ধর্ষণ করে।

তার বোন কাছের এক বাজারে এসে বোনের পরিস্থিতির কথা জানিয়ে সাহায্য প্রার্থনা করে এক দোকানদারের কাছে। ওই দোকানদার ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেখতে পান মেয়েটিকে হেনস্তা করে চলেছে দুষ্কৃতীরা। তাঁকে দেখেই অভিযুক্তরা পালিয়ে যায়। আহত কিশোরী নগ্ন অবস্থাতেই দৌড়তে শুরু করে। প্রায় অর্ধেক কিলোমিটার পথ দৌড়ে যায়। এরপর তাকে থামিয়ে তাকে জামাকাপড় তুলে দেন ওই দোকানদার।

পুলিশ আধিকারিক হরেন্দ্র মাহওয়ার জানিয়েছেন, ওই মেয়েটি ও তাঁর বন্ধু ও বোনের সঙ্গে মন্দিরের কাছে পৌঁছলে তিন সন্দেহভাজন ব্যক্তি, যারা পথের ধারেই মদ্যপান করছিল‌, তারা তাদের তাড়া করে। বাকিরা পালাতে পারলেও ওই কিশোরী পারেনি। এরপর তাকে নির্জন স্থানে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে দুষ্কৃতীরা।