মুম্বই: তাঁর নেশা অভিনয়৷পেশাও বটে৷তবে নেশার জন্যই সেটে মাথায় চোট পাওয়ার পরেও অভিনয়টা করে গেলেন রণবীর সিং, বন্ধ করলেন না শ্যুটিং৷ ঠিক এমনটাই হল সেইদিন, ‘পদ্মাবতী’র সেটে৷ ছবির ক্লাইম্যাক্সের শ্যুটিং চলছিল৷এতটাই নিমজ্জিত ছিলেন তাঁর কাজে যে তিনি বুঝতেই পারলেন না তাঁর মাথা ফেটে রক্ত পড়ছে৷ শ্যুটিং দৃশ্যটি শেষ হওয়ার পড়ে সবার চোখে পড়ল যে তাঁর মাথায় রক্ত!
তারপরই ফার্স্ট এইড দেওয়া হল তাঁকে এমনকি নিয়ে যাওয়া হল কাছাকাছি হাসপাতালে৷সূত্রের খবর হাসপাতালে তাঁর চিকিৎসা হওয়ার পর মুহুর্তেই রণবীর ছবির সেটে ফেরেন, এটা ভাবেননি যে এই চোট তাঁর অভিনয়ে প্রভাব ফেলতে পারে বা তাঁর এই মাথার চোটের পর একটু সময় দেওয়া উচিৎ৷রণবীর সেটে ফিরে সেইদিনের পুরো শ্যুটিং শেষ করেন৷
‘‘রণবীরের চোট এতটাই গুরুতর ছিল, যে মাথায় সেলাইও পড়ে তাঁর।৷ এমন মাত্রায় ডেডিকেশন ও কমিটমেন্ট অভিনেতা পাওয়া সত্যি দুর্লভ ’’ বললেন অভিনেতা-ঘনিষ্ট এক সূত্র৷
এর আগেও ছবির শ্যুটিং করতে গিয়ে আহত হয়েছেন রণবীর। ২০১৫ সালে সঞ্জয় লীলা বনশালিরই ছবি বাজিরাও মস্তানির সেটে অ্যাকশন দৃশ্যের শ্যুটিং করতে গিয়ে আহত হন রণবীর সিং। তখন জয়পুরে একটি বাড়ির উপর থেকে পড়ে যান রণবীর। তবে সে আঘাত এইবারের মত গুরুতর ছিল না৷

পদ্মাবতী ছবিতে রণবীরের সঙ্গে অভিনয় করছেন শাহিদ কাপূর ও দীপিকা পাড়ুকোনও৷

স্বামীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বস্ত্র ব্যবসাকে অন্যমাত্রা দিয়েছেন।'প্রশ্ন অনেকে'-এ মুখোমুখি দশভূজা স্বর্ণালী কাঞ্জিলাল I