কলকাতা- প্রয়াত জনপ্রিয় অভিনেতা তাপস পাল। মঙ্গলবার ভোররাতে মুম্বইয়ের হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। বর্ষীয়ান অভিনেতার মৃত্যুতে এই মুহূর্তে শোকের ছায়া। বহু তারকাই অভিনেতার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন।

অভিনেতা রঞ্জিত মল্লিক বলছেন, “সকাল বেলা শুনেই খুব খারাপ লেগেছে। ও আমাদের থেকে বয়সে অনেক ছোট। প্রায় ৩০ বছর একসঙ্গে আমরা কাজ করেছি। খুবই দুঃখের এবং যন্ত্রণার। আসলে কপালে থাকলে যা হয়। খুব দুর্ভাগ্যজনক। খুব ভালো অভিনেতা ছিল। এরকম হঠাৎ চলে যাবে ভাবিনি। কিছুদিন আগের একটি ছবি দেখেছিলাম, সেখানেও ক্লান্তির ছাপ ছিল। মুখ দেখে মনে হচ্ছিল শরীর দিচ্ছে না।”

বর্ষীয়ান কিংবদন্তী অভিনেত্রী মাধবী মুখোপাধ্যায়ও গভীর ভাবে শোকাহত হয়ে বলেছেন, “মন খুব খারাপ লাগছে। তাপসের সঙ্গে তো কম দিনের পরিচয় নয়। তাপস অসুস্থ হলে আমি যেতাম আর আমিও অসুস্থ হলে তাপস আসত। এরকমই সম্পর্ক ছিল। কিন্তু রাজনীতিতে যাওয়ার পরে দেখাসাক্ষাৎ কম হতো। সম্প্রতি চন্দননগর থেকে একজন এসছিল এবং বলল, তাপস বম্বে গিয়েছে । এই পর্যন্তই জানতাম। কিন্তু আজ সংবাদমাধ্যম থেকে প্রথম খবর পেলাম। খুবই মর্মান্তিক। কিন্তু কিছু করার নেই। ওদের বাড়ি গেলেই বা কে আছে জানি না। সাহেব ছবির সময়ে বিএ পাশ করে এসে বলেছিল, ‘দিদি আমি বিএ পাশ করেছি।’ খেতে ভালোবাসতো। চাইনিজ খেতে চাইল। প্রযোজক টাকা দিতে চেয়েছিল। কিন্তু আমি বললাম এটা আমি খাওয়াব। ও খুব সহজ সরল মানুষ ছিল। কী করে উল্টোপাল্টা হয়ে গেল জানি না।”

প্রসঙ্গত, তাপস পাল বেশ কিছুদিন ধরেই অসুস্থ ছিলেন। ১ ফেব্রুয়ারি মেয়ের কাছে যাচ্ছিলেন তাপস পাল। তখনই বিমানবন্দরে অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। এর পরেই সেখান থেকে মুম্বইয়ের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে। টানা ২ সপ্তাহ হাসপাতালে ছিলেন। কিন্তু মঙ্গলবার ভোররাতে ফের কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয়ে মৃত্যু হয় তাঁর।