বর্ধমান: ঘটনার ২দিনের মাথায় বর্ধমান ষ্টেশন ঘুরে গেলেন রেলের ৩ সদস্যের প্রতিনিধিদল৷ সোমবার ভবনের একাংশ ভেঙে পড়ার তদন্তে আসেন তারা৷

রেল সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমবার দুপুর ৩টে নাগাদ ঘটনাস্থলে প্রথমে একজন সদস্য আসেন৷ প্রত্যক্ষদর্শীদের বিবরণ লিপিবদ্ধ করার কাজ শুরু করেন৷ ঘণ্টাখানেক পর রেলের ৩ সদস্যের প্রতিনিধিদলের দ্বিতীয় সদস‌্য আসেন। সন্ধ্যে নাগাদ আসেন অপর সদস্য। পৃথক পৃথকভাবে তাঁরা গোটা ঘটনার বিষয়ে খোঁজখবর নেন৷

এই তিন সদস্যের কমিটির মধ্যে রয়েছেন সিনিয়র ডিভিশনাল কমার্শিয়াল ম্যানেজার, সিনিয়র ডিভিশনাল ইঞ্জিনিয়ার অফ ইঞ্জিনিয়ারিং-২ এবং সিনিয়র ডিভিশনাল সিকিউরিটি অফিসার। এই প্রতিনিধিদলের মধ্যে সিনিয়র ডিভিশনাল ইঞ্জিনিয়ার সহকারী ইঞ্জিনিয়ারদের নিয়ে দীর্ঘক্ষণ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। মাটি খুঁড়ে এই ভবনের ভিতের অবস্থা যাচাই করেন। মাপজোক করা হয় ভবনের। মাটি সহ বেশ কিছু নমুনাও সংগ্রহ করেন তাঁরা।

রেলের প্রতিনিধিদলটি ঐদিন প্রায় ২০জন প্রত্যক্ষদর্শীর বয়ান লিপিবদ্ধ করেন৷ যাদের মধ্যে অধিকাংশই ছিলেন রেলের কর্মী। যদিও রেলের এই তদন্ত কমিটির নামে কার্যত গোটাটাই নাটক করা হয়েছে বলে দাবী করেছেন রেলের একাধিক নিত্যযাত্রী এবং প্রত্যক্ষদর্শীরা। তাঁরা জানিয়েছেন, কোথাও কোনও প্রচার তাঁরা জানেন না, বা শোনেননি যে, রেল প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ান নিতে চায়। তাই একেবারেই গোটা ঘটনাকে ধামাচাপা দেওয়া চেষ্টা হচ্ছে। তদন্ত কমিটির নামে প্রহসন শুরু হয়েছে।

বর্ধমান ষ্টেশন ঘুরে দেখার পর তদন্ত কমিটির প্রতিনিধিরা সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে গিয়েছেন৷