কলকাতা: টেস্টে তাঁর ডিফেন্সের জন্য পরিচিত ছিলেন ‘দ্য ওয়াল’ বলে৷ ভারতীয় ব্যাটিং লাইন-আপে রাহুল শরদ দ্রাবিড় ছিলেন ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’৷ ভারতের মাটিতে প্রথম দিন-রাতের টেস্টের প্রশংসা করে দ্রাবিড় বলেন, ‘ডে-নাইট টেস্ট খেলতে ভালোই লাগত৷’

শুক্রবার ইডেন গার্ডেন্স সাক্ষী থাকল ভারতের মাটিতে প্রথম ডে-নাইট টেস্টের৷ সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের সভাপত্বিতে ভারতীয় ক্রিকেট দেখল প্রথম পিঙ্ক বল টেস্ট৷ প্রথম দিনই মাঠে হাজির ছিলেন ৬০ হাজারের বেশি দর্শক৷ উপস্থিত ছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটের কিংবদন্তিরা৷ প্রাক্তন ভারত অধিনায়কদের সংবর্ধনা দেওয়া হয় প্রথম দিনের খেলা শেষের পর৷ তবে চা-বিরতিতে প্রাক্তন ভারত অধিনায়কদের গলফ কারে করে মাঠ ঘোরানো হয়৷

ইডেনের স্মৃতিরোমন্থন করে দ্রাবিড় বলেন, ‘এখানে আমার অনেক স্মৃতি রয়েছে৷ স্বাভাবিকভাবে এখানে আসতে পেরে দারুণ লাগছে৷ ৪৫-৫০ হাজার দর্শকের সামনে খেলার আনন্দই আলাদা৷ এখানে অবিশ্বাস্য ও সুন্দর এক পরিবশের সৃষ্টি হয়৷ এর থেকে ভালো কী-ইবা হতে পারে৷ আশা করব আরও এ রকম ম্যাচ হবে৷’

অক্টোবের ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের প্রেসিডেন্টের চেয়ারে বসার পরেই ভারতের মাটিতে ডে-নাইট টেস্টের ভাবনা শুরু করে দেন সৌরভ৷ বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে রাজি করিয়ে ইডেনে সিরিজের দ্বিতীয় তথা শেষ টেস্ট দিন-রাতের করার সিদ্ধান্ত নেন বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট৷ পিঙ্ক বল টেস্টের জন্য ইডেন ও তার আশপাশকে গোলালি করে তোলে সিএবি৷

পিঙ্ক বল টেস্টের প্রথম দিন আলাদা রোমাঞ্চ অনুভব করেন দর্শকরা৷ দারুণ উপভোগ করেন ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটারও৷ প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশকে ১০৬ রানে অল-আউট করে দেওয়ার পর প্রথমদিনের শেষে তিন উইকেটে ১৭৪ রান তুলেছে ভারত৷ অর্থাৎ বাংলাদেশের থেকে এখনই ৬৮ রানে এগিয়ে টিম ইন্ডিয়া৷ ৫৯ রানে ক্রিজে রয়েছেন ক্যাপ্টেন কোহলি৷ সঙ্গে রয়েছেন তাঁর ডেপুটি অজিঙ্ক রাহানে (২৩)৷

ম্যাচ প্রসঙ্গে দ্রাবিড় বলেন, ‘দিনের প্রথম দুই ঘণ্টায় বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান বেশ সমস্যায় ছিল৷ মাত্র ১০৬ রানে গুটিয়ে যায়৷ সকালে ও সন্ধ্যায় নতুন বল কেমন আচরণ করে সেটা দেখতে হবে৷ তবে আমারও ডে-নাইট টেস্ট খেলতে ভালো লাগত৷ ২০০১ সালে ইডেনে আমরা খেলেছি৷ যেখানে প্রায় এক লক্ষ লোক খেলা দেখেছিল৷’