ইম্ফল: কর্মসংস্থানের সৃষ্টি করা তো অনেক দূরের কথা। মোদীর কারণে খোয়া গিয়েছে কোটি কোটি চাকরি। শুধু মাত্র ২০১৮ সালেই দেশে এক কোটি মানুষের চাকরি খোয়া গিয়েছে।

আরও পড়ুন- ঘোষণার আগেই নিজেকে স্বঘোষিত প্রার্থী ঘোষণা করে দিলেন বিজেপি নেত্রী

এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করেছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। বুধবার উত্তর-পূবের রাজ্য মণিপুরে এক জনসভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে তীব্র ভাষায় নরেন্দ্র মোদী পরিচালিত কেন্দ্রীয় সরকারকে আক্রমণ করেন রাহুল।

আরও পড়ুন- মমতার ‘অনুপ্রেরণায়’ শাড়ি পরে প্রচারে মৌসম নুর, খেললেন হোলি

কংগ্রেস সভাপতির আক্রমণের প্রধান বিষয় ছিল কর্মসংস্থান। ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে এটাই ছিল নরেন্দ্র মোদীর নানাবিধ প্রতিশ্রুতির মধ্যে অন্যতম একটি। প্রতি বছরে দুই কোটি করে কর্মসংস্থানের আশ্বাস দ্যেছিলেন মোদী। যা পূরণে প্রধানমন্ত্রী সম্পূর্ণ ব্যর্থ বলে দাবি করেছেন রাহুল। তাঁর কথায়, “মোদী জমানায় প্রতি বছরে গড়ে ৩০ হাজার করে চাকরি খোয়া গিয়েছে। আর সবই হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর কারণে। শুধুমাত্র ২০১৮ সালেই এক কোটি চাকরি খুইয়েছে ভারত। এটাই তাঁর ব্যর্থতাকে তুলে ধরে।”

আরও পড়ুন- বিকাশকে সমর্থন সিপিআই(এমএল) রেড স্টারের, বিপদ দেখছে তৃণমূল

এদিনের সভা থেকে নানাবিধ ইস্যু নিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ করেন রাহুল। যার মধ্যে অন্যতন ছিল নোট বাতিল এবং নাগরিকত্ব বিল। রাহুল বলেন, “একদিন সকালে ঘুম থেকে উঠে মোদীর ইচ্ছে হল নোট বাতিল করবেন। এটা কী ছেলেখেলা? সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রা প্রশ্নের মুখে পড়ে গেল।” মণিপুরের সংস্কৃতি মোদী জমানায় ধ্বংস হয়েছে বলেও অভিযোগ করেছেন রাহুল। যা কংগ্রেস জমানায় সুরক্ষিত ছিল। নাগরিকত্ব বিল পাশ হয়ে গেলে মণিপুরের বাসিন্দাদের প্রতিকূলতার মুখে পরতে হবে বলে জানিয়েছেন রাহুল।