বাসেল: নোজোমি ওকুহারাকে ধরাশায়ী করে প্রথমবার বিশ্বচ্যাম্পিয়ন হলেন সিন্ধু৷ প্রথম ভারতীয় হিসাবে এমন নজির গড়লেন পুসারলা৷ এই নিয়ে টানা তিনবার বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপের খেতাবি লড়াইয়ে জায়গা করে নিয়েছিলেন তিনি৷ গত দু’বার রানার্স হয়ে রুপোর পদকেই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছিল হায়দরাবাদী ব্যাডমিন্টন কুইনকে৷ এবার বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপ অভিযান শুরুর আগে সমর্থকদের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন পদকের রং বদলের৷ কথা রাখলেন সিন্ধু৷ জাপানি তারকাকে ২১-৭, ২১-৭ স্ট্রেট গেমে উড়িয়ে দিয়ে ইতিহাসে চিরস্থায়ী জায়গা করে নিলেন তিনি৷

২০১৭ বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে রূপকথার লড়াই হয়েছিল সিন্ধু ও ওকুহারার মধ্যে৷ সেবার প্রায় ২ ঘণ্টার ম্যারাথন লড়াই শেষে ওকুহারার কাছে সিন্ধু পরাজিত হয়েছিলেন ১৯-২১, ২২-২০, ২০-২২ গেমে৷ সেদিক থেকে এবার ওকুহারাকে ধরাশায়ী করে মধুর প্রতিশোধ নিলেন পিভি৷ মাঝে ২০১৮ সালের ফাইনালে ক্যারোলিনা মারিনের কাছে ১৯-২১, ১০-২১ গেমে হেরেছিলেন পুসারলা৷

আরও পড়ুন: গ্র্যান্ড স্ল্যাম অভিষেকে সামনে ফেডেরার, তৃপ্ত সুমিত

এই নিয়ে বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপে মোট পাঁচটি পদক জিতলেন সিন্ধু৷ ২০১৩ ও ২০১৪ সালে পর পর দু’বার বিডব্লুএফ বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপের মহিলা সিঙ্গলসে ব্রোঞ্জ পদক জিতেছিলেন তিনি৷ ২০১৭ ও ২০১৮ সালে পর পর দু’বার রুপোর পদক গলায় ঝোলান ভারতীয় তারকা৷ এবার প্রথম ভারতীয় হিসাবে বিশ্বচ্যাম্পিয়নশিপের সোনার পদক জিতলেন সিন্ধু৷

গোটা টুর্নামেন্টেই দুরন্ত ছন্দে ছিলেন সিন্ধু৷ কোয়ার্টার ফাইনালে বিশ্বের প্রাক্তন এক নম্বর তাই জু য়িংকে পরাজিত করেন তিনি৷ সেমিফাইনালে অল ইংল্যান্ড চ্যাম্পিয়ন তথা বিশ্বের ৩ নম্বর চিনের চেন য়ু ফেইকে একতরফা লড়াইয়ে ধরাশায়ী করেন৷ এবার খেতাবি লড়াইয় প্রাক্তন বিশ্বচ্যাম্পিয়ন তথা বিশ্বের চার নম্বর তারকা ওকুহারাকে মাত্র ৩৬ মিনিটে বিধ্বস্ত করেন পুসারলা৷

আরও পড়ুন: লাথামের শতরানে চালকের আসনে নিউজিল্যান্ড

আনফোর্সড এররে পয়েন্ট খুইয়ে ফাইনাল ম্যাচ শুরু করেন সিন্ধু৷ ঠিক তার পরেই টানা ৮টি পয়েন্ট তুলে ম্যাচের রাশ নিজের হাতে তুলে নেন ভারতীয় ব্যাডমিন্টন তারকা৷ মাত্র ৬ মিনিটে ১১-২ পয়েন্টে এগিয়ে থেকে লড়াই মিড গেম ব্রেকে টেনে নিয়ে যান পিভি৷ পুনরায় টানা ৮টি পয়েন্ট জিতে প্রথম গেম জয়ের দোরগোড়ায় পৌঁছে যান সিন্ধু৷ শেষমেশ মাত্র ১৬ মিনিটে প্রথম গেম জিতে নেন ২১-৭ পয়েন্টের ব্যবধানে৷

দ্বিতীয় গেমের প্রথম দু’টি পয়েন্ট নিজের নামে করেন সিন্ধু৷ ঠিক তখন পালটা লড়াইয়ের চেষ্টা চালান ওকুহারা৷ তবে বিশেষ সুবিধা করতে পারেননি জাপানি তারকা৷ ২০ মিনিটের লড়াইয়ে পিভি দ্বিতীয় গেম জিতে নেন প্রথম গেমের মতোই ২১-৭ ব্যবধানে৷