স্টাফ রিপোর্টার, জলপাইগুড়ি: কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের সিদ্ধান্তে শিক্ষা পরিণত হচ্ছে পণ্যে৷ প্রতিবাদে আন্দোলনে আরএসপি’র ছাত্র সংগঠন পিএসইউ৷ শিক্ষা ক্ষেত্রে নৈরাজ্য ও বিশৃঙ্খলার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ ভাবে লড়াইয়ে গতি বাড়াবারও আহ্বান জানানো হয়েছে সংগঠনের তরফে৷

পিএসইউ এর রাজ্য সম্পাদক মহম্মদ সফিউল্লা বলেন, ‘‘কেন্দ্র ইউজিসি তুলে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে৷ রাজ্যের সরকারও এই প্রক্রিয়াকে সমর্থন করেছে। পড়ুয়াদের ভবিষ্যত তথৈবচ৷’’

অারও পড়ুন: বঞ্চনার অভিযোগ তুলে প্রশাসনের দ্বারস্থ প্রতিবন্ধীরা

কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়াদের অধিকার কেড়ে নেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ ইউজিসির৷ এক্ষেত্রে কেন্দ্রের পাসাপাশি দায়ী করা হয় রাজ্য সরকারকেও৷ সংগঠনের রাজ্য সম্পাদক মহম্মদ সফিউল্লার দাবি, ‘‘কলেজ ক্যাম্পাসে ছাত্র ছাত্রীদের অর্জিত অধিকার হরণ করা চলছে। গণতান্ত্রিক পরিবেশ নষ্ট করে কলেজের সুষ্ঠু পঠনপাঠনের পরিবেশ ধ্বংস করা হচ্ছে।’’

শিক্ষাঙ্গণে শিক্ষার পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে ছাত্র ছাত্রীদের ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ডাক দেওয়া হয় পিএসইউ এর পক্ষ থেকে৷ সরকারি বাসে পড়ুয়াদের ভাড়ায় ছাড় দেওয়ার বিষয়টিও বিবেচনার জন্য দাবি জানানো হয় আরএসপি’র ছাত্র সংগঠনের তরফে৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.