মুম্বই: পৃথ্বী শ-এর প্রতিভা ইতিমধ্যেই প্রশংসিত৷ এবার তাঁর মধ্যে বীরেন্দ্র সেহওয়াগের মিল খুঁজে পেলেন প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার ওয়াসিম জাফর৷ ভবিষ্যতে পৃথ্বী হতে উঠতে পারে ভারতীয় দলে ‘নতুন’ সেহওয়াগ৷

আকাশ চোপড়ার সাথে তাঁর ইউটিউব চ্যানেলে জাফর বলেন, ‘আমি মনে করি, কোনও সংশয় নেই পৃথ্বী একজন স্পেশাল খেলোয়াড়। যে শটগুলি ও নেয় এবং যদি এভাবেই নিতে থাকে তাহলে ও একদিন বীরেন্দ্র সেহওয়াগ হয়ে উঠবে৷ ও ক্ষমতা রয়েছে বিপক্ষ বোলিং আক্রমণকে ধ্বংস করতে পারবে৷ আমার মনে হয়, নিজের খেলাকে আরও ভালো করে বুঝতে হবে ওকে। কোথায় একটু ধীরে চলতে হবে, সেটা জানতে হবে। নিউজিল্যান্ডে একটু অপ্রস্তুত লেগেছে ওকে। দু’বার শর্ট ডেলিভারিতে আউট হয়েছে। ও ফাঁদে পা-দিয়ে ফেলেছিল।’

২০১৮ সালের অক্টোবরে টেস্ট ক্রিকেটে অভিষেক ঘটেছিল পৃথ্বী শ-র। রাজকোটে অভিষেকেই সেঞ্চুরি করে নজর কেড়েছিলেন মুম্বইয়ের এই ডানহাতি তরুণ। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে শুরুতেই তাঁর ১৩৪ রানের ইনিংস সাড়া ফেলে দেয়। তাঁর সঙ্গে সচিন তেন্ডুলকরের তুলনা শুরু হয়ে যায়। ভারতের হয়ে দীর্ঘ দিন খেলার মতো প্রতিভা পৃথ্বীর রয়েছে। কিন্তু চোট-আঘাত ও ডোপিংয়ের কারণে কিছুটা পিছিয়ে পড়েন মুম্বইয়ের এই ডানহাতি৷

২০১৮-১৯ মরশুমে অস্ট্রেলিয়া সফরে গিয়ে প্রস্তুতি ম্যাচে গোড়ালিতে চোট পেয়েছিলেন পৃথ্বীর। এর পর শৃঙ্খলাজনিত কারণে সমস্যায় পড়েন মু্ম্বইয়ের এই প্রতিশ্রুতিময় ব্যাটসম্যান। চলতি বছরের শুরুতে নিউজিল্যান্ড সফরে জাতীয় দলে ফেরেন। কিন্তু ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় টেস্টে হাফ-সেঞ্চুরি ছাড়া বড় রান আসেনি পৃথ্বীর ব্যাট থেকে।

বড় ক্রিকেটার হতে গেলে পৃথ্বীকে আরও শৃঙ্খলাপরায়ণ হতে বলেও জানান জাফর৷ প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার বলেন, ‘মাঠের বাইরে শৃঙ্খলায় পৃথ্বীকে আরও জোর দিতে হবে। আন্তর্জাতিক স্তরে সফল হওয়ার মতো সব মশলা ওর রয়েছে। তবে তার জন্য মাঠের বাইরে ওকে আরও শৃঙ্খলাপরায়ণ হতে পারে৷’

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ