স্টাফ রিপোর্টার,কলকাতা: জানুয়ারি থেকে সপ্তম পে কমিশন অনুযায়ী বেতন পাবেন সমস্ত কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপকরা৷ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই ঘোষণার পরই ফের শহরে আন্দোলনে নামলেন প্রাথমিক শিক্ষকদের একাংশ৷

বুধবার দুপুরে প্রাথমিক শিক্ষকদের আন্দোলনে উত্তাল হয়ে উঠে কলকাতা৷ যাদবপুর থেকে গড়িয়ের দিকে এগোতে থাকে শিক্ষকদের বিশাল মিছিল৷ তাদের অভিমুখ ছিল রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বাড়ি৷ মাঝপথে বাঘাযতিন মোড়ে সেই মিছিল আটকে দেয় পুলিশ৷ ব্যারিকেড করে থামানো হয় মিছিল৷ তখন রাস্তার ওপরই বসে পড়েন আন্দোলনকারীরা৷

এর ফলে যাদবপুর থেকে গড়িয়া মধ্যে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়৷ সমস্যায় পড়েন যাত্রীরা৷ এমনকি পুলিশের ব্যারিকেডের জন্য সাধারণ মানুষও যাতায়াত করতে পারেন না৷ যদিও পুলিশের জানিয়েছে, যাদবপুর গড়িয়া রুটের গাড়িগুলো সুলেখা মোড় থেকে ঘুরিয়ে দেওয়া হচ্ছে৷

অনেকদিন ধরেই পিআরটি স্কেলের দাবিতে আন্দোলন করছে অরাজনৈতিক শিক্ষক সংগঠন উস্থি ইউনাইটেড প্রাইমারি টিচার্স অ্যাসোসিয়েশন৷ চলতি বছরের অগাষ্ট মাসে দফায় দফায় সুবোধ মল্লিক স্কোয়ার ও রাণি রাসমনি রোড মহামিছিল করেন ওই সংগঠনের প্রায় ৪৫ হাজার শিক্ষক৷ এবার ফের তারা রাস্তায় নেমেছেন৷

প্রাথমিক শিক্ষকদের সংগঠনটির দাবি, ২০১২ সালের ২৩ মার্চ ন্যাশনাল কাউন্সিল অফ টিচার্স এডুকেশন একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে৷ বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, প্রাথমিক শিক্ষক হতে গেলে ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ এবং দু’বছরের প্রশিক্ষণ থাকতে হবে৷ এই শর্তাবলীর ভিত্তিতে অনেক প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ করা হয় এই রাজ্যে৷ আর যাঁদের এই যোগ্যতা ছিল না তাঁরা এনসিটিই-র নিয়ম অনুযায়ী যোগ্যতা অর্জন করেন৷

অভিযোগ, এনসিটিই নিয়ম মেনে যোগ্যতা অর্জন করলেও পশ্চিমবঙ্গে শিক্ষকদের বেতন কাঠামো মাধ্যমিক বা অষ্টম শ্রেণি পাশ যোগ্যতারই রয়েছে৷ মিছিলে অংশগ্রহণকারী শিক্ষকদের দাবি, যেখানে যোগ্যতা বাড়ানো হল, সেখানে যোগ্যতার অনুপাতে বেতনও বাড়ানো হল না৷ তাই বেতন বৃদ্ধির দাবি জানাচ্ছেন তারা৷

গত জুলাই মাসে দীর্ঘ অনশনের পর জয় পেয়েছিলেন প্রাথমিক শিক্ষকরা। দাবি মেনে সরকার গ্রেড পে ২৬০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩৬০০টাকা করা প্রাথমিক শিক্ষক সংগঠের অভিযোগ, গ্রেড পে বাড়লেও পে-ব্যান্ডের ক্ষেত্রে কোনও পরিবর্তন হয়নি।

দেশের প্রতিটি রাজ্যেই এনসিটিই-র নিয়ম মেনে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ করা হয়৷ বেশিরভাগ রাজ্যেই তাঁদের বেতন দেওয়া হয় কেন্দ্রীয় সরকারের পিআরটি স্কেল অনুযায়ী৷ কেন্দ্রীয় সরকারের ষষ্ঠ কমিশনের বেতন কাঠামো অনুযায়ী পিআরটি স্কেলে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন ৯,৩০০ থেকে ৩৪,৮০০ টাকা৷ এক্ষেত্রে ব্যতিক্রম হল শুধুমাত্র পশ্চিমবঙ্গ৷