স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: গত মঙ্গলবার অমিত শাহের সভা ঘিরে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় চত্বর। বিদ্যাসাগর কলেজে ঢুকে মূর্তি ভাঙার অভিযোগ ওঠে। তবে কে এই মূর্তি ভেঙেছে তার দায় স্বীকার করা নিয়ে বিজেপি-তৃণমূল দুই দলেই চলছে চাপানউতোর। বুধবার সকালেই দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠক করেছেন অমিত শাহ। আর দুপুরে ভিডিও দেখিয়ে অমিতের বৈঠকের পাল্টা সাংবাদিক সম্মেলন করে মূর্তি কে ভেঙেছে তার জবাব চাইলেন শিক্ষামন্ত্রী তথা তৃণমূলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়।

এদিন পার্থবাবু নিজের নাকতলার বাড়িতেই একটি সাংবাদিক সম্মেলন করেন। যেখানে গতকালের ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে কয়েকটি ভিডিও ফুটেজ দেখিয়ে প্রকাশ্যে প্রশ্ন ছুঁড়ে দেন, বিজেপি না করলে এই ঘৃণ্য কাজ করল কারা। এই ফুটেজ দেখিয়ে পার্থবাবুর বাবুর বক্তব্য, ” দেখুন, গলায় গেরুয়া উত্তরীয়, হাতে বিজেপির দলীয় পতাকা। তাহলে বিজেপি না করলে এই কাজ করল কারা!”

পার্থবাবু আরও বলেন, ওরা বলে কি করে এই ঘটনা তৃণমূল ঘটিয়েছে! নিজেরা করে আবার সাফাই দিচ্ছে। জবাব দিন অমিত শাহ। জবাব দিতেই হবে। কাল যারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে তাঁরা বিদ্যাসাগরের মত মনীষীদের মূল্য বোঝেন না। ওনারা ইতিহাস শেষ করে দিতে চাইছেন। বৈঠকে পার্থবাবুকে প্রশ্ন করা হয়, গতকালের এই ঘটনায় বিজেপিকে মানুষের ক্ষোভের মুখে পড়তে হবে কিনা। উত্তরে তিনি বলেন, মানুষ উত্তর দিয়ে দেবে সময়ে, সমস্ত লাফালাফি বন্ধ হয়ে যাবে।

তিনি আরও জানান, শিক্ষা দপ্তর থেকে এই ঘটনার বিষয়ে দায়িত্বভার গ্রহন করা হয়েছে। নির্বাচন বিধি জারি থাকলেও শিক্ষা দপ্তর থেকে এই ঘৃণ্য কাজের বিপরীতে দাঁড়িয়ে সমস্ত সাহায্য করব। অপমান জবাব দেব।