ফাইল ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, হাওড়া: আগামিকাল ২১ জুলাই তৃণমূল কংগ্রেসের শহিদ সমাবেশ৷ কলকাতার ধর্মতলায় একপ্রকার সাজো সাজো রব৷ রাত পোহালেই এই চত্ত্বরই যে লোকে লোকারণ্য হয়ে উঠবে এমনটাই আশা দলীয় নেতা-মন্ত্রীদের৷ ইতিমধ্যেই দূরের জেলাগুলি থেকে তৃণমূলের কর্মী সমর্থকেরা শহরে আসতে শুরু করেছেন। ট্রেনপথেও আসছেন বহু কর্মী৷

প্রতি বছরের মতো এবছরও ২১ জুলাইয়ের প্রস্তুতি হিসাবে হাওড়ার সালকিয়া শ্যাম গার্ডেনে তৃণমূলের উদ্যোগে প্রায় কুড়ি থেকে পঁচিশ হাজার মানুষের রান্না করা হচ্ছে। এখানে উপস্থিত রয়েছেন গৌতম চৌধুরী ও অন্যান্য নেতৃবৃন্দ। শনিবার সকালে মন্ত্রী লক্ষ্মীরতন শুক্লা হাওড়া স্টেশনে গিয়ে গোটা বিষয় তদারকি করেন। সেখানে প্রত্যেক বছরের মতো এ বছরও ক্যাম্প করা হয়েছে।

পড়ুন: বিধাননগরের ফাঁকা মেলার মাঠে ২৫ হাজার মানুষের অপেক্ষায় তৃণমূল

এর পাশাপাশি মেডিক্যাল ক্যাম্পেরও ব্যবস্থা রয়েছে৷ যারা ট্রেনপথে এখানে এসে উপস্থিত হবেন, তাঁদের প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রেখেই আরও বেশি করে জোর দেওয়া হয়েছে এই ক্যাম্পে৷ দলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ২১ জুলাই উপলক্ষে প্রতি বছরই আগত কর্মীদের জন্য খাওয়াদাওয়া ও রাতে থাকার ব্যবস্থা করা হয়ে থাকে। এবারও এর ব্যতিক্রম হয়নি। প্রায় ২৫ হাজার কর্মীর জন্য এই আয়োজন করা হয়েছে।

জানা যাচ্ছে, কর্মী-সমর্থকদের জন্য রান্না হচ্ছে, ভাত এবং ডিমের ঝোল৷ শনিবার রাতের মধ্যেই পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বর্ধমান, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর সহ বিভিন্ন জেলা থেকে কর্মীরা এখআনে এসে উপস্থিত হবেন৷স্টেশন থেকে তাদের নিয়ে আসার জন্য বাসের ব্যবস্থাও করা হয়েছে৷ খাওয়াদাওয়ার পর রয়েছে শোবার ব্যবস্থাও৷ রবিবার এখান থেকেই র্মতলার সভার উদ্দেশ্যে রওনা দেওয়া হবে বলে জানা গিয়েছে৷