মুম্বই: নামের মতোই ত্রয়োদশ আইপিএলে তিনিই প্রবীণ ক্রিকেটার৷ সবচেয়ে বেশি বয়সি ক্রিকেটার হিসেবে আগেই অভিষেক হয়েছে প্রবীণ তাম্বের৷ সদ্যসমাপ্ত আইপিএল নিলামে বর্ষীয়ান এই লেগ-স্পিনারকে কিনে ইতিহাস গড়েছে কেকেআর৷ কিন্তু ২০২০ আইপিএলে প্রবীণ শেষ পর্যন্ত মাঠে নামতে পারবেন কি না, তা নিয়ে দেখা গিয়েছে সংশয়৷

গত বছর আবু ধাবিতে টি-১০ লিগে খেলেছেন মহারাষ্ট্রের এই বর্ষীয়ান স্পিনার৷ আর তা নিয়েই ত্রয়োদশ আইপিএল-এ তাম্বের খেলা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন। কারণ বিসিসিআই-এর নিয়ম অনুযায়ী, বোর্ডের সঙ্গে চুক্তি থাকা ক্রিকেটাররা বিশ্বের কোনও প্রান্তের টি-১০ বা টি-২০ প্রতিযোগিতায় খেলতে পারবেন না। এবারের নিলামে ৪৮ বছরের তাম্বেকে ২০ লক্ষ টাকায় নিয়েছে কলকাতা নাইট রাইডার্স।

আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ব্রিজেশ পটেল বলেন, ‘বিসিসিআই-এর সঙ্গে চুক্তি থাকা ক্রিকেটার কোনও টি-২০ অথবা টি-১০ টুর্নামেন্টে অংশ নিতে পারবে না। তবে ক্রিকেটাররা কাউন্টি বা বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত কোনও টুর্নামেন্টে খেলতেই পারেন। তবে খেলার আগে রাজ্য সংস্থা এবং বোর্ডের কাছ থেকে অনুমতি নিতে হয়। সুতরাং আমরা তাম্বের বিষয়টা খতিয়ে দেখছি।’

আইপিএলের ইতিহাসে সবচেয়ে বয়স্ক ক্রিকেটার হলেন তাম্বে৷ প্রথমশ্রেণির ক্রিকেট না-খেলেই আইপিএলে সুযোগ পান তিনি৷ ৪১ বছর বয়সে রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে আইপিএল অভিষেক হয় তাম্বের৷ ২০১৪ রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে নাইটদের বিরুদ্ধে হ্যাটট্রিক করেন মহারাষ্ট্রের এই লেগ-স্পিনার৷ সে বছর সবচেয়ে বেশি উইকেট নিয়ে পার্পেল ক্যাপ জিতে ছিলেন তাম্বে৷ শেষবার আইপিএল খেলেছেন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে ২০১৭-তে৷ কিন্তু এবার কুলদীপ যাদব ও সুনীল নারিনের পাশাপাশি কি তাম্বেকে নাইটদের জার্সিতে খেলতে দেখা যাবে৷ উত্তর মিলবে আরও কিছুদিন পর৷