বার্লিন:   প্রেগনেন্সি টেস্ট কিট কেনার ঝামেলা just ভুলে যান। প্রযুক্তির জামানায় এবার স্মার্টফোনই জানিয়ে দেবে আপনি প্রেগন্যান্ট কিনা। জার্মানির হ্যানোভার ইউনিভার্সিটির হ্যানোভার সেন্টার ফর টেকনোলজির গবেষকরা স্মার্টফোনের জন্য তৈরি করেছেন এমনই এক ফাইবার অপটিক সেন্সর। যার সাহায্যে খুব সহজেই ডায়বেটিস, প্রেগনেন্সি সহ একাধিক বায়োমলিকিউলার টেস্ট করা যাবে।

স্মার্টফোনের এই সেন্সর বডি ফ্লুইড, রক্ত, ইউরিন, লালা, ঘাম এবং নিশ্বাসও পরীক্ষা করতে পারবে।

এমনকী, এই সেন্সরের সঙ্গে জিপিএস সিগনাল যুক্ত করলে তা জানিয়ে দেবে আপনার পার্শ্ববর্তী ওষুধের দোকান, হাসপাতাল বা অ্যাম্বুলেন্সের হদিশও। সারফেস প্লাসমন রিজোনেন্সের সাহায্যে কাজ করে এই সেন্সর। যা কিনা প্রযুক্তির জমানায় বেশ আধুনিক বলেই দাবি করছেন গবেষকরা।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

কোনগুলো শিশু নির্যাতন এবং কিভাবে এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানো যায়। জানাচ্ছেন শিশু অধিকার বিশেষজ্ঞ সত্য গোপাল দে।