মহিষাদল: মহিষাদল ব্লকের তৃণমূল সভাপতি তথা পঞ্চায়েত সমিতির সহ সভাপতি তিলক চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে ঘুষ, রাজনৈতিক কেলেঙ্কারী এবং কোটি কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগ তুলে, মহিষাদল বাজারে পোস্টার দিল মহিষাদল ছাত্র পরিষদ নামের একটি সংগঠন।

শনিবার সকালে তৃণমূলের ব্লক সভাপতি ও পঞ্চায়েত সমিতির সহ সভাপতির নামে এই ধরনের পোস্টার চোখে পড়ায় শুরু হয়েছে রাজনৈতিক তরজা।

সূত্রের খবর, মহিষাদল রাজ কলেজের দূর্নীতিতে ব্লক সভাপতি, পঞ্চায়েত সমিতির সহ সভাপতির বিরুদ্ধে কোটি কোটি টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ তুলে এই পোস্টার দেওয়া হয়ছে। এর আগেও কয়েকবার ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ তুলে, ফ্লেক্স দেওয়া হয়েছিল মহিষাদলের তৃণমূল কার্যালয় সহ বিভিন্ন জায়গায়। তারপর আবার এই ধরনের পোস্টার পড়ায় বেড়েছে রাজনৈতিক তর্জা।

পূর্ব মেদিনীপুর জেলার তমলুকের বিজেপি সভাপতি নবারুন নায়েক জানান, এইধরনের পোস্টার আগেও পড়েছে উনার নামে। কিন্ত দল কোনও ব্যবস্থা নেয়নি। সাধারন মানুষ ক্ষুদ্ধ হয়ে পড়েছেন। অভিযোগের সত্যতা খতিয়ে দেখে প্রশাসন ব্যবস্থা গ্রহন করে পদ থেকে সরিয়ে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা করুক।

অপরদিকে, মহিষাদল ব্লকের তৃণমূল সভাপতি তথা মহিষাদল পঞ্চায়েত সমিতির সহ সভাপতি তিলক চক্রবর্তী জানান, রাজনৈতিক কালিমা লিপ্ত করার জন্য কেউ বা কারা এই ধরনের ঘটনা ঘটাচ্ছে। প্রশানের প্রতি তাঁর আস্থা আছে। তাঁরাই বিষয়টি খতিয়ে দেখবে।