কলকাতা: করোনায় কলকাতায় আরও এক পুলিশ অফিসারের মৃত্যু হল৷ আজ বৃহস্পতিবার ভোর রাতে একটি বেসরকারি হাসপাতালে এএসআই তুষার কান্তি কুলে করোনার কাছে হেরে গেলেন৷ তিনি হরিদেবপুর থানায় কর্মরত ছিলেন৷

লালবাজার জানিয়েছে,অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইনস্পেক্টর তুষার কান্তি কুলে। হরিদেবপুর থানায় কর্মরত ছিলেন। একেবারে সামনের সারিতে থেকে লড়ছিলেন করোনা-যুদ্ধে। করোনা আক্রান্ত হয়ে সম্প্রতি ভর্তি হন হাসপাতালে৷ সেখানেই আজ প্রাণ হারালেন৷ প্রয়াত সহকর্মীর শোকসন্তপ্ত পরিবারের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছে কলকাতা পুলিশ৷

কিছুদিন আগে তুষারবাবু মৃদু উপসর্গ দেখা দেয়৷ করোনা টেস্টের পর রিপোর্ট পজিটিভ আসে৷ তাকে বাইপাসের কাছে বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়৷ অবস্থার অবনতি হলে ভেন্টিলেটর রেখে চিকিৎসা চলছিল৷ কিন্তু শেষ পর্যন্ত তিনি করোনার কাছে হেরে যান৷

করোনার বিরুদ্ধে একেবারে সামনে থেকে লড়াই চালাচ্ছেন কলকাতা পুলিশ৷ এই পর্যন্ত আক্রান্ত প্রায় দুই হাজার কলকাতা পুলিশকর্মী ও আধিকারিক৷ তবে অধিকাংশ পুলিশকর্মী ও আধিকারিক সুস্থও হয়ে উঠেছেন৷ কেউ কেউ করোনার কাছে হেরেও গিয়েছেন৷ এবার আরও এক পুলিশ অফিসারের প্রাণ কেড়ে নিল করোনা৷

এর আগে করোনা আক্রান্ত হয়ে শিয়ালদা ট্রাফিক গার্ডের এক কনস্টেবলের মৃত্যু হয়েছিল৷ ওই কনস্টেবল কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের ভেন্টিলেশনে ছিলেন৷ করোনা আক্রান্ত হয়ে তিনি ওই হাসপাতালে ভর্তি হন৷ তবে করোনার সঙ্গে কিডনির সমস্যাও ছিল তার৷ শেষ পর্যন্ত শনিবার হাসপাতালেই তার মৃত্যু হয়৷

এছাড়া করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয় কলকাতা পুলিশের এক কনস্টেবলের৷ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যু হয় মাঝবয়সী ওই পুলিশ কনস্টেবলের।ওই পুলিশ কনস্টেবল সাউথ ডিভিশনের রিজার্ভ অফিসে পোস্টিং ছিলেন। সেখান থেকে তাকে ডেপুটেশনে শেক্সপিয়ার সরণি থানায় ডিউটি দেওয়া হয়েছিল।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।