নয়াদিল্লি : পার্কিং নিয়ে বিবাদের জেরে রণক্ষেত্র পরিস্থিতির আকার ধারণ করল পুরোনো দিল্লি। জানা গিয়েছে শনিবার বিকেল নাগাদ তিস হাজারি কোর্টের বাইরের চত্বরে ব্যাপক সংঘর্ষ বাঁধে পুলিশ ও আইনজীবীদের মধ্যে। পুলিশের বিরুদ্ধে গুলি ছোঁড়ার অভিযোগও ওঠে।

জানা গিয়েছে, এক আইনজীবী গাড়ি পার্কিং নিয়ে পুলিশের সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়ে পড়লে ঘটনার শুরু হয়। এরপর পুলিশ আদালত চত্বর থেকে ওই আইনজীবীকে গ্রেফতার করে নিজেদের হেফাজতে নিয়ে যেতে গেলে তাঁকে ছাড়ানোর চেষ্টা করে তাঁর সহকর্মী ও বন্ধুরা।

আরও পড়ুন – দুষ্কৃতীদের গুলিতে মৃত্যু হল এক পুলিশকর্মীর

অভিযোগ, আইনজীবীদের আটকাতে গুলি ছোঁড়ে পুলিশ। আর তাতে আহত হন এক আইনজীবী। তাঁকে সেন্ট স্টেফেন্স হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। পুলিশের তরফে এই গুলি চালানোর কথা অস্বীকার করা হয়েছে। অন্যদিকে আদালত চত্বরে থাকা একটি পুলিশের গাড়িতেও আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে। আগুন লাগার জেরে দিল্লির দূষিত পরিবেশের মধ্যেই আকাশে ওঠে কালো ধোঁয়ার কুন্ডলী। ফলে পরিবেশেরও ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি উঠেছে।

জানা গিয়েছে, এই ঘটনার প্রতিবাদে আইনজীবীরা নিজেদের তালাবন্ধ করে আদালতের ঘরে আটকে রেখেছে। পাশাপাশি পুলিশের এই কাজের প্রতিবাদে সোমবার কর্মবিরতির ডাক দেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, এই মুহূর্তে দিল্লিতে পার্কিং-এর সমস্যা মারাত্মক। এমনকি সাম্প্রতিক রায়েও সুপ্রিম কোর্টের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এটি রাজধানীর অন্যতম ‘গুরুত্বপূর্ণ’ সমস্যা। অবস্থা এমন পর্যায়ে পৌঁছেছে যে বিগত কয়েক বছর ধরে মাল্টি লেভেল পার্কিং তৈরির ব্যবস্থা করেও বিশেষ সাফল্য পাওয়া যায়নি।