বারাণসী: এক রিক্সাচালককে চিঠি লিখলেন খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। বৃহস্পতিবার সেই চিঠি পেলেন বারাণসীর ওই রিক্সা চালক। চিঠি হাতে পেয়ে রীতিমতো উচ্ছ্বসিত মঙ্গল নামে রিক্সা চালকের পরিবার।

বিয়ের অভিনন্দন জানাতেই ওই চিঠি পাঠান নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রী নব দম্পতি ও ওই পরিবারকে চিঠির মাধ্যমে শুভেচ্ছা বার্তা পাঠান। চিঠি পাওয়ার পর আনন্দে ভাসছে ওই পরিবার। স্বয়ং প্রধানমন্ত্রীর চিঠি বলে কথা!

মঙ্গল কেভত নামে ওই রিক্সা চালক দমরি গ্রামের বাসিন্দা। এই গ্রামটি আসলে প্রধানমন্ত্রীর দত্তক নেওয়া। মঙ্গল তাঁর মেয়ের জন্মদিনে রীতিমতো কার্ড পাঠিয়ে নিমন্ত্রণ করেছিলেন মোদীকে। সেই আমন্ত্রণের জবাবেই চিঠি পাঠিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রীর চিঠি হাতে পাওয়ার পর নিজের অনুভূতি সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন মঙ্গল। তিনি বলেন, ” আমার কিছু বন্ধু মেয়ের বিয়েতে মোদীকে নিমন্ত্রণের কথা আমায় বলেছিল, তাই আমি মোদীকে দুটি চিঠি পাঠিয়েছিলাম। একটি পাঠিয়েছিলাম দিল্লিতে এবং অপরটি তাঁর বারাণসীর অফিসে। কিন্তু আমি কখনও আশা করিনি যে ওই চিঠির কোনও প্রত্যুত্তর আমি পাব। তবে এখন আমি এই চিঠি পেয়েছি। আমরা প্রত্যেকেই খুব উচ্ছ্বসিত। ” মঙ্গল জানিয়েছে, বিয়ে বাড়িতে যত লোক এসেছিল, সব লোককে আমি এই চিঠি দেখিয়েছি।

এই মঙ্গল আসলে গঙ্গা নদীর একজন বড় ভক্ত। সে নিজে মাসে যত আয় করেন, তার একটা মোটা অংশ খরচ করেন নদীর জন্য। এছাড়াও ‘স্বচ্ছ ভারত অভিযান’-এও অত্যন্ত সক্রিয় ভাবে অংশ নিয়েছিলেন এই রিক্সাচালক। পরে বিজেপির সদস্য সংগ্রহ অভিযানের সময় মঙ্গলের নাম পার্টি মেম্বার হিসেবে নথিভুক্ত করেছিলেন মোদী।

স্বামীর সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বস্ত্র ব্যবসাকে অন্যমাত্রা দিয়েছেন।'প্রশ্ন অনেকে'-এ মুখোমুখি দশভূজা স্বর্ণালী কাঞ্জিলাল I