মেক্সিকো সিটি: হ্যান্ড স্যানিটাইজার খেয়ে মৃত্যু হল তিনজনের। অন্যদিকে দৃষ্টিশক্তি হারালেন অপর এক জন। এঘটনা ঘটেছে মেক্সিকোতে। নিউ মেক্সিকো স্বাস্থ্য আধিকারিকরা এই বিষয় সম্পর্কে জানিয়েছেন।

একটি সংবাদ প্রতিবেদন জানাচ্ছেন, হ্যান্ড স্যানিটাইজার খাওয়ার পরে আরও ৩ জনের অবস্থা গুরুতর। মনে করা হচ্ছে, যে ৭ জন ব্যক্তি এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার খেয়েছে তাতে মিথেনল ছিল।

মেক্সিকোর স্বাস্থ্য সচিব জানিয়েছেন, যদি কখনও মনে হয় কোনও ব্যক্তি ভুল করে হ্যান্ড স্যানিটাইজার খেয়ে নেন, তবে তৎক্ষণাৎ চিকিৎসকের সঙ্গে যোগাযোগ করুন। অনেকে আবার মনে করছেন, কিছু মানুষ হয়তো অ্যালকোহল না পেয়ে স্যানিটাইজার খেয়ে ফেলেছিলেন।

চিকিৎসকেরা জানাচ্ছেন, ব্যাপারটা এমন নয় যে স্যানিটাইজার খেলে বাঁচা অসম্ভব। কিন্তু যত তাড়াতাড়ি লোকেরা হাসপাতালে আসবে, সুস্থ হওয়ার সম্ভাবনা তত বেশি।

মিথানলের অতিরিক্ত মাত্রার সংস্পর্শে বমি বমি ভাব, মাথাব্যথা, বমি বমি ভাব, স্নায়ুতন্ত্রের স্থায়ী ক্ষতি এমনকি মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে। করোনা ভাইরাসের প্রকোপ শুরু হওয়ার আগে অনেক কারাগারে স্যানিটাইজারের ব্যবহার নিষিদ্ধ ছিল। এক্ষত্রে ভয় ছিল বন্দীরা এটা খেয়ে ফেলতে পারে বা আগুন লাগাতে ব্যবহার করতে পারে।

সম্প্রতি আমেরিকার ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশন মেক্সিকান সংস্থা লোকদের কাছে স্যানিটাইজার ব্যবহার না করার আবেদন জানিয়েছেন। বলা হয়েছে স্যানিটাইজারে বিষাক্ত রাসায়নিক থাকতে পারে।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ