চন্ডীগড়: অবসর ভেঙে জাতীয় দলের প্রাক্তন তারকা ক্রিকেটার যুবরাজ সিংকে রাজ্য দলে ফেরার ডাক দিল পঞ্জাব ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন। আসন্ন মরশুমে ক্রিকেটারের পাশাপাশি মেন্টরের ভূমিকা পালনের জন্য রাজ্য ক্রিকেটের সচিব পুনীত বালির প্রস্তাব গিয়েছে যুবির কাছে।

ইএসপিএন ক্রিকইনফোর রিপোর্টে প্রকাশ দেশের প্রাক্তন তারকা অল-রাউন্ডারকে পিসিএ সচিব অবসর ভেঙে ঘরোয়া ক্রিকেট দলে ফেরার আর্জি জানিয়েছেন। আপাতত যুবরাজের প্রত্যুত্তরের অপেক্ষায় পিসিএ। ইএসপিএন ক্রিকইনফোর রিপোর্ট মোতাবেক বালি জানিয়েছেন, ‘ফিজিও এবং ট্রেনারদের সঙ্গে আমাদের ছেলেরা আসন্ন মরশুমের প্রস্তুতি শুরু করেছে। চন্ডীগড়ে সেশনের শুরুর দিকে ওদের সঙ্গে যুবরাজ ছিলেন। গত দু’বছরে অনেক ক্রিকেটার আমাদের রাজ্য ছেড়ে অন্য রাজ্যে চলে গিয়েছেন। তাই এমন সময় আমরা যুবরাজের অভিজ্ঞতা এবং দক্ষতা কাজে লাগাতে চাইছি তরুণদের উদ্বুদ্ধ করার জন্য।’

বালি আরও জানিয়েছেন, ‘আমি সবধরনের ফর্ম্যাটে খেলার জন্যই তাঁকে আর্জি জানিয়েছি। কিন্তু যদি তিনি কেবল সংক্ষিপ্ত ফর্ম্যাট খেলতে চান তাহলেও তাঁকে স্বাগত। আমি যুবরাজের প্রত্যুত্তরের অধীর অপেক্ষা করছি।’ উল্লেখ্য, গত কয়েক বছরে মনন ভোহরা, বারিন্দর স্রানের মতো একাধিক ক্রিকেটার পঞ্জাব ছেড়ে চন্ডীগড়ে চলে গিয়েছেন। কিন্তু পুনীত বালির আর্জিতে সাড়া দিয়ে ছয় ছক্কার নায়কের পক্ষে ফিরে আসাটা মোটেই সহজ নয়। কারণ ইতিমধ্যেই বিদেশের দু’টি ক্রিকেট লিগের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছেন যুবি। আর বিসিসিআই’য়ের প্রোটোকল অনুযায়ী ভারতীয় ক্রিকেট থেকে অবসর গ্রহণ করার পরেই বিদেশি লিগে খেলার ছাড়পত্র পাওয়া সম্ভব হয়। এখন দেখার রাজ্য ক্রিকেট সংস্থার সচিবের আহ্বানে কী বলেন যুবরাজ।

উল্লেখ্য, ক্রিকেট বিশ্বকাপ চলাকালীন গতবছর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সঙ্গে প্রায় দু’দশকের সম্পর্কে ইতি টানেন যুবরাজ সিং। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে সন্ন্যাস নেওয়ার আগে ভারতের জার্সিতে ৩০৪টি ওয়ান-ডে, ৫৮টি টি২০ এবং ৪০টি টেস্ট ম্যাচ খেলেছেন এই প্রথিতযশা অল-রাউন্ডার। ২০০০ আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে অভিষেকের পর ২০০৭ টি২০ বিশ্বকাপ, ২০১১ ক্রিকেট বিশ্বকাপে নজরকাড়া পারফরম্যান্সে দেশবাসীর পছন্দের একজন ক্রিকেটার হয়ে উঠেছিলেন যুবি। ২০০৭ টি২০ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের ফাস্ট বলার স্টুয়ার্ট ব্রডের এক ওভারে ৬টি ছক্কা ক্রিকেট অনুরাগীদের আজও আন্দোলিত করে।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও