শুভেন্দু ভট্টাচার্য , কোচবিহার: জলপাইগুড়ি হোমে শিশু পাচার চক্রে দলের মহিলা মোর্চার রাজ্য সম্পাদক জুহি চৌধুরীর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ প্রমানিত হলে দল যে তাঁর পাশে দারাবে না৷ মঙ্গলবার এ কথা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷

কোচবিহারে একটি দলীয় কর্মসূচীতে বিজেপি রাজ্য সভাপতি বলেন, এটা একটি রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র হতে পারে। বর্তমানে সিআইডি তদন্ত চলছে, দলও নিজের মত করে তদন্ত চালাচ্ছে। এদিন তিনি বলেন জুহি চৌধুরি যদি সৎ হন তবে তাঁর সিআইডির সামনে আসা উচিত।

এদিন কোচবিহারের রবীন্দ্র ভবনে দলের শক্তি কেন্দ্র গুলির নেতাদের নিয়ে একটি বৈঠক করেন দিলীপ ঘোষ । আগামী পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে কিভাবে দলকে আরও শক্তিশালি করা যায় সেই বিষয়ে প্রাথমিক একটা রণকৌশল তৈরি করে দেন তিনি।

গত লোক সভার উপনির্বাচনের ফলা ফল তুলে ধরে দিলীপ ঘোষ বলেন, হাজার সন্ত্রাস সত্বেও কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রে দ্বিতীয় স্থান পেয়েছে বিজেপি৷ ভোট বেড়েছে প্রায় আড়াই গুন। এদিন প্রায় ২০০ জন বিভিন্ন দলের সমর্থকের হাতে পদ্মফুলের পতাকা তুলে দেন দিলীপ ঘোষ৷

মঙ্গলবার সকালে ট্রেনে চেপে নিউ কোচবিহার স্টেশনে পৌঁছন বিজেপির রাজ্য সভাপতি৷ সেখানে থেকে এনফিল্ড বাইক চালিয়ে কোচবিহারে আসেন। তবে হেলমেট না পড়ায় বিতর্ক দেখা দিয়েছে। সেই বিতর্ক উড়িয়ে দিয়েছেন দিলীপ ঘোষ৷ তাঁর দাবী র‍্যালিতে ঘণ্টায় ২০ কিমি বেগে বাইক চালানো হয়েছে , যা বেআইনি নয়।