ইসলামাবাদ: সন্ত্রাসের জন্য টাকা দেওয়ার অভিযোগে পাক আদালতে দোষী সাব্যস্ত হাফিজ সইদ। বিভিন্ন সংগঠনকে টাকা দিয়েছে হাফিজ। আর সেই জন্যই বুধবার তাকে দোষী সাব্যস্ত করল পাক আদালত৷

পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের গুজরানওয়ালা শহরের একটি আদালত এদিন এই জঙ্গি নেতাকে অপরাধী হিসাবে গণ্য করেছে ৷ জামাত-উদ-দাওয়া প্রধানের বিরুদ্ধে থাকা অন্যান্য মামলাগুলিকে পাকিস্তানের গুজরাতের আদালতে স্থানান্তরিত করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে৷

এদিকে, মুম্বই হামলার এই মাস্টারমাইন্ড হাফিজ সইদকে মুক্তি দিয়েছে পাকিস্তান। ভারত জম্মু–কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে নেওয়ার পরই পাকিস্তানের এই সিদ্ধান্ত। মঙ্গলবার পাকিস্তানের সংসদে ইমরান খান হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন, কাশ্মীরের যা পরিস্থিতি ফের পুলওয়ামার মতো ঘটনা ঘটতে পারে। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে পুলওয়ামা ঘটনার পেছনে পাকিস্তান মদতপুষ্ট জঙ্গি সংগঠনের হাত ছিল বলে ভারত দাবি করেন।

গত ১৭ জুলাই পাক অধিকৃত পাঞ্জাবের গুজকানওয়ালা থেকে লাহোর যাওয়ার পথে গ্রেফতার করা হয় আন্তর্জাতিক জঙ্গি হিসেবে পরিচিত হাফিজ৷ তারপর জেল হেফাজতে পাঠানো হয় তাকে৷ তবে প্রথম দিকে হাফিজ সইদের পাশে থাকার চেষ্টা করেছিল পাকিস্তান৷ তবে আন্তর্জাতিক মহলের দাবি কূটনৈতিক চাপের কাছে মাথানত করে পাকিস্তান৷ এবার ফের মুক্তি দেওয়া হল তাকে।

মুম্বই হামলার মাস্টারমাইন্ড ছিল লস্করের এই শীর্ষ নেতা। মুম্বই হামলার পরেই তাকে কালো তালিকাভুক্ত করে রাষ্ট্রসংঘ।

হাফিজ সইদ ও তার ১২ সহযোগীর বিরুদ্ধে একাধিক মামলা দায়ের করে সে দেশের পাঞ্জাব প্রদেশের সন্ত্রাস দমন বিভাগ (সিটিডি)। হাফিজ ও তাঁর সহযোগীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন জঙ্গি কার্যকলাপ, সন্ত্রাসবাদে মদত দিয়ে অর্থ জোগানো ও আর্থিক প্রতারণা সংক্রান্ত অভিযোগ আনে পাকিস্তান।