উরি: ফের রবিবার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করল পাকিস্তান। নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে জম্মু ও কাশ্মীরের বারামুল্লা জেলায় এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় একজন জওয়ান শহিদ হয়েছেন বলেই জানা গিয়েছে।

সূত্রের খবর অনুযায়ী, নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে উত্তর কাশ্মীরের বারামুল্লা জেলায় হঠাৎই পাকিস্তানের তরফে বিরাট গুলি বর্ষণ শুরু হয়। ভারতও শক্তহাতে কড়া জবাব দিয়েছে পাকিস্তানকে। এই ঘটনায় আহত জওয়ানকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেই তার মৃত্যু হয়।

শুক্রবারই জম্মু-কাশ্মীরের শ্রীনগরে গ্রেনেড হামলা হয়েছে। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ৭ জন। সিটি সেন্টার লাল চকের থেকে মাত্র কয়েকশ মিটার দূরে হরি সিংহ হাই স্ট্রিট মার্কেটে এই হামলার ঘটনা ঘটেছে বলে এক পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, এই মাসেই সঙ্গত,অনন্তনাগে ডেপুটি পুলিশ কমিশনারের অফিসের সামনেও গ্রেনেড হামলা করা হয়েছিল। তবে সেদিনের হামলায় হতাহতের ঘটনা সামনে আসেনি। প্রসঙ্গত, অগস্টে কাশ্মীর থেকে ৩৭০ অনুচ্ছেদ সরিয়ে নিয়েছে মোদী সরকার। তারপর থেকেই ক্রমেই কাশ্মীরের পরিস্থিতি জটিল হয়েছে বলে দাবি করেছেন অনেকে। এক রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে, ৩৭০ বাতিলের পর থেকে, প্রায় শতাধিক নিরাপত্তারক্ষী আহত হয়েছেন।

পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এই হামলার সময় বাজারের বেশিরভাগ দোকানই বন্ধ ছিল। তবে কিছু স্টল খোলা ছিল। ফলে খুব বড় কোনও ক্ষতি হয়নি। উল্লেখ্য, কাশ্মীরে পুনরায় চালু হতে চলেছে পোস্টপেইড মোবাইল সার্ভিস ব্যবস্থা। দীর্ঘ প্রায় ২ মাস পর এই পরিষেবা শুরু হওয়ার মুখেই ঘটল এই হামলা।