ফাইল ছবি

ইসলামাবাদঃ পাকিস্তানের জঙ্গিরা এবার দুই দেশের আন্তর্জাতিক সীমানা ও রাস্তা ব্যবহার করে জম্মু-কাশ্মীরকে টার্গেট করছে। সম্প্রতি একটি রিপোর্টে সতর্ক করে বলছে, গোয়েন্দা বিভাগ। তাদের তথ্যের ওপর ভিত্তি করে, সরকার সীমানা নিরাপত্তা বাহিনীকে (বিএসএফ) জানায় নিরাপত্তা আরও জোরদার করতে এবং সীমানা অঞ্চলগুলিকে কঠোর নজরদারিতে রাখার কথা বলেন।

বিএসএফ ছাড়া, অন্যান্য দফতর ও বাহিনীকেও এবিষয়ে অবগত করা হয়েছে। বলা হয়েছে, সীমানা লাগোয়া পাকিস্তানের কোন জঙ্গিঘাঁটিগুলি ভারতে অনুপ্রবেশের জন্য সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত হচ্ছে তা খুঁজে বেড় করতে হবে। এবিষয়ে এক নিরাপত্তা আধিকারিক বলেন, কোন জঙ্গিঘাঁটিগুলি ভারতে অনুপ্রবেশের জন্য সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত হচ্ছে তা খুঁজে বের করার জন্য কাজ শুরু হয়েছে। এই এজেন্সি গুলি সন্ত্রাসবাদীদের একটি তালিকা তৈরি করছে যারা সীমানার অন্যপারে ছড়িয়ে রয়েছে ও একই উদ্যেশে কাজ করছে।

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগেই সন্ত্রাসবাদীরা রাস্তা ব্যবহার করে ভারতের ওপর আঘাত করেছে। জাতীয় তদন্তকারী এজেন্সি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রককে এই সন্ত্রাসবাদীদের এই অভিসন্ধির বিষয়ে অবগত করেছে। এনআইএর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রককে পেশ করা একটি রিপোর্ট এ উঠে এসেছে যে সন্ত্রাসবাদীরা আন্তর্জাতিক সীমানা ব্যবহার করে ক্রমাগত অনুপ্রবেশ ঘটাচ্ছে।

একটি রিপোর্টের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৭ থেকে এখনও অবধি তেত্রিশ জন পাকিস্তানি সন্ত্রাসবাদীকে ট্রাকে করে কাশ্মীরে পাঠানও হয়েছে। বেছে নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন অনুশঠানের দিনগুলিকে। এই রিপোর্টটি তৈরি হয় বিগত সময়ে গ্রেফতার হওয়া সন্ত্রাসবাদীদের জিজ্ঞাসাবাদের মাধ্যমে। যদিও বিএসএফ এই রিপোর্ট এর সাথে একমত নয়।