ইসলামাবাদ: পাকিস্তানে জঙ্গিদের অস্তিত্বের কথা আবারও মেনে নিলেন সেদেশের শীর্ষ সেনা আধিকারিক আসিফ গফুর৷ জানান, সন্ত্রাস দমনে এখনও অনেক কাজ করা বাকি৷ পাশাপাশি বালাকোট এয়ারস্ট্রাইক নিয়েও একটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দেন৷ আসিফ গফুর জানান, ওই এয়ারস্ট্রাইকের পর কেবলমাত্র একজন ভারতীয় বায়ুসেনা আধিকারিক তাদের হাতে বন্দি হয়৷ পাকিস্তানের এই স্বীকারোক্তি তাদের দ্বিচারিতার মুখোশ খুলে দিল বলে মনে করছে আন্তর্জাতিক মহল৷ কারণ শুরু থেকে ভারত এই দাবি করে এসেছিল তাদের এক বায়ুসেনার জওয়ান পাকিস্তানের হাতে বন্দি হয়েছে৷ আর পাকিস্তান দু’জন ভারতীয় বায়ুসেনা পাইলটকে বন্দি করার দাবি জানিয়ে আসছিল৷

সোমবার ইসলামাবাদে সাংবাদিক সম্মেলন করেন পাকিস্তানের ইন্টার সার্ভিসেস পাবলিক রিলেশনের ডিরেক্টর জেনারেল আসিফ গফুর৷ সেখানে উঠে আসে পাকিস্তানের হাতে ভারতীয় বায়ুসেনার বন্দির বিষয়টি৷ এই নিয়ে গফুর বলেন, ‘‘ প্রথমে একটি বিশ্বস্ত সূত্র থেকে এই খবর আসে৷ পরে বিষয়টি আরএকটু তলিয়ে দেখতে গিয়ে জানতে পারি, যে দু’জন নয়, একজন ভারতীয় বায়ুসেনা পাইলট আমাদের হাতে বন্দি হয়েছে৷ তারপর আমি নিজে সঠিক তথ্য সেনাকে দিই৷’’ তাঁর দাবি, পাকিস্তানের সেই দাবি যদি তখন সবাই বিশ্বাস করতে পারে তাহলে এটাও করবে৷

এর পাশাপাশি পাকিস্তানে যে জঙ্গি, জিহাদি সংগঠনগুলি এখনও লম্ফঝম্প করে বেড়াচ্ছে তা কবুল করে নেন আসিফ গফুর৷ তবে সেটা মেনে নিয়েও জানান, ওই সব জঙ্গি ও জিহাদি সংগঠনগুলির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে৷ তবে এই ব্যবস্থা যে যথেষ্ট নয় সেটা স্বীকার করে নেন৷ সন্ত্রাস দমনে পাকিস্তানকে আরও কড়া হতে হবে৷ আসিফ গফুর বলেন, ‘‘জঙ্গি দমনে মিলিয়ন ডলার ব্যয় হচ্ছে৷ তবে এখনও অনেক কাজ করা বাকি৷ সন্ত্রাসবাদ দমনে আরও কড়া হতে হবে৷’’ দেশে জঙ্গিদের বাড়বাড়ন্তের জন্য পূর্বতন সরকারকেই দায়ী করেন তিনি৷